ঢাকা   বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৪ | ৫ বৈশাখ ১৪৩১

ঈদুল ফিতরের নামাজ আদায়ে সউদীতে নির্দেশনা নিয়ে বিভ্রান্তি

Daily Inqilab অনলাইন ডেস্ক

০৩ এপ্রিল ২০২৪, ১২:০৮ এএম | আপডেট: ০৩ এপ্রিল ২০২৪, ১২:০৮ এএম


সউদী আরবের ইসলামবিষয়ক মন্ত্রী আব্দুল লতিফ বিন আবদুল আজিজ আলু শেখ বলেছেন, দেশটিতে উম্ম আল-কুরা দিনপঞ্জি অনুযায়ী সূর্যোদয়ের ১৫ মিনিট পর পবিত্র ঈদুল ফিতরের নামাজ আদায় করতে হবে। সউদী আরবের বিভিন্ন অঞ্চলে মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাদের কাছে এ-সংক্রান্ত একটি নির্দেশনা জারি করেছেন মন্ত্রী।
সউদী গেজেট গত রোববার এ সংক্রান্ত একটি সংবাদ প্রকাশ করে। কিন্তু এ সংক্রান্ত সংবাদ পরিবেশন করতে গিয়ে দেশের শীর্ষ একটি গণমাধ্যম ‘সূর্যোদয়ের ১৫ মিনিট পরে’ থেকে ঈদুল ফিতরের নামাজ আদায়ের নির্দেশনাকে উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে ‘সূর্যোদয়ের ১৫ মিনিটের মধ্যে’ শিরোনামে পরিবেশন করে। এ নিয়ে পাঠকমহলে বিভ্রান্তির সৃষ্টি হয়। পাঠকরা নিষিদ্ধ সময়ে নামাজ আদায়ে সউদী নির্দেশনাকে ঔদ্ধত্যপূর্ণ বলে মন্তব্য করতে থাকেন। তাদের মন্তব্য- সূর্যোদয়ের পর থেকে এশরাকের আগ পর্যন্ত নামাজ পড়া নিষেধ। এসময়ের মধ্যে কিভাবে তারা নামাজ আদায়ের নির্দেশনা দেয়?
ফকিহরা গবেষণা করে দেখেছেন, সূর্য ওঠার পর হলুদ আলো দূর হতে ২০ মিনিট সময় লাগে। অর্থাৎ আবহাওয়া অফিস যদি বলে, সকাল ছয়টায় সূর্য উঠবে, তার মানে ৬টা ২০ পর্যন্ত সব ধরনের নামাজ থেকে বিরত থাকতে হবে। তাহলে নিষিদ্ধ সময়ে কিভাবে নামাজ হয়?
বাস্তবতা যাচাই করতে সউদী গেজেটের সংশ্লিষ্ট লিংকে গিয়ে দেখা গেছে, সউদী নির্দেশনায় সূর্যোদয়ের ১৫ মিনিট পরে নামাজ আদায়ের নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। কিন্তু সংশ্লিষ্ট গণমাধ্যমকে জানানোর পরও তারা সময়ক্ষেপণ করে পরে বিষয়টি সংশোধন করে। তবে ইতোমধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় বিষয়টি নিয়ে বিভ্রান্তি দেখা দেয়। কেউ কেউ সউদী আরবের প্রকৃত নির্দেশনা না দেখে দেশটিকে নিয়ে অনাকাক্সিক্ষত মন্তব্যও করেন।
সউদী নির্দেশনায় বলা হয়েছে, পবিত্র ঈদুল ফিতরের নামাজ আদায় করতে হবে খোলা মাঠে ও মসজিদে। তবে যেসব মসজিদের পাশে খোলা মাঠ কিংবা ঈদগাহ আছে, সেসব মসজিদের ভেতরে পবিত্র ঈদুল ফিতরের নামাজ আদায় করা যাবে না।
মুসল্লিরা যাতে নির্বিঘেœ ও আরামে পবিত্র ঈদুল ফিতরের নামাজ আদায় করতে পারেন, সে জন্য আগে থেকে সংশ্লিষ্ট মাঠ ও মসজিদ পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন করা, প্রয়োজনীয় সংস্কারসহ প্রাথমিক প্রস্তুতির ওপর গুরুত্বারোপ করেছেন আব্দুল লতিফ বিন আবদুল আজিজ আলু-শেখ।


বিভাগ : প্রবাস জীবন


মন্তব্য করুন

HTML Comment Box is loading comments...

আরও পড়ুন

উলভার্টের ১৮৪* ছাপিয়ে আতাপাত্তুর ১৯৫*, শ্রীলঙ্কার রেকর্ডময় জয়

উলভার্টের ১৮৪* ছাপিয়ে আতাপাত্তুর ১৯৫*, শ্রীলঙ্কার রেকর্ডময় জয়

মালিকদের লুটপাটে বেসরকারি অনেকগুলো ব্যাংক ধ্বংসের মুখে

মালিকদের লুটপাটে বেসরকারি অনেকগুলো ব্যাংক ধ্বংসের মুখে

শরিফুল-তাসকিন তোপে উড়ে গেল শেখ জামালও

শরিফুল-তাসকিন তোপে উড়ে গেল শেখ জামালও

বাসের ধাক্কায় কিশোরগঞ্জে দুই মোটরসাইকেল আরোহী নিহত

বাসের ধাক্কায় কিশোরগঞ্জে দুই মোটরসাইকেল আরোহী নিহত

ফারাক্কার প্রভাবে পদ্মা নদী এখন বিলে পরিনত হয়েছে

ফারাক্কার প্রভাবে পদ্মা নদী এখন বিলে পরিনত হয়েছে

আমার স্ত্রীর কোনো ক্ষতি হলে সেনাপ্রধানকে দায়ী করব : ইমরান খান

আমার স্ত্রীর কোনো ক্ষতি হলে সেনাপ্রধানকে দায়ী করব : ইমরান খান

পশ্চিমাদের চাপ বাড়লেও ইরানের তেল রপ্তানিতে বাধা নেই

পশ্চিমাদের চাপ বাড়লেও ইরানের তেল রপ্তানিতে বাধা নেই

কারাবন্দি থেকে ফের গৃহবন্দি সু চি

কারাবন্দি থেকে ফের গৃহবন্দি সু চি

প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ ও প্রদর্শনীর উদ্বোধন প্রধানমন্ত্রীর

প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ ও প্রদর্শনীর উদ্বোধন প্রধানমন্ত্রীর

ক্রিমিয়া ও ডনবাস চিরকাল রাশিয়ার মধ্যে থাকবে: স্লোভাক প্রধানমন্ত্রী

ক্রিমিয়া ও ডনবাস চিরকাল রাশিয়ার মধ্যে থাকবে: স্লোভাক প্রধানমন্ত্রী

রুশ সেনাদের অগ্রগতির কথা স্বীকার করেছেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট

রুশ সেনাদের অগ্রগতির কথা স্বীকার করেছেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট

সিঙ্গাপুরের নতুন প্রধানমন্ত্রীকে যে চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করতে হবে

সিঙ্গাপুরের নতুন প্রধানমন্ত্রীকে যে চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করতে হবে

বনশ্রীতে লাগা আগুন নিয়ন্ত্রণে

বনশ্রীতে লাগা আগুন নিয়ন্ত্রণে

ছাতকে সড়ক দুর্ঘটনায় কণ্ঠশিল্পী পাগল হাসানসহ প্রাণ গেল দুইজনের

ছাতকে সড়ক দুর্ঘটনায় কণ্ঠশিল্পী পাগল হাসানসহ প্রাণ গেল দুইজনের

ইসরাইল প্রতিশোধ নিলে আঞ্চলিক যুদ্ধের ঝুঁকি বাড়বে: জর্ডান

ইসরাইল প্রতিশোধ নিলে আঞ্চলিক যুদ্ধের ঝুঁকি বাড়বে: জর্ডান

ব্রেন্ডন লিঞ্চের নেতৃত্বে যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিনিধি দল ঢাকায় আসছেন ২১ এপ্রিল

ব্রেন্ডন লিঞ্চের নেতৃত্বে যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিনিধি দল ঢাকায় আসছেন ২১ এপ্রিল

মুজিবনগর সরকার এবং বাংলাদেশের স্বাধীনতা একই সূত্রে গাঁথা: রাষ্ট্রদূত মো.ইমরান

মুজিবনগর সরকার এবং বাংলাদেশের স্বাধীনতা একই সূত্রে গাঁথা: রাষ্ট্রদূত মো.ইমরান

সেরেল্যাকে অতিরিক্ত চিনি মেশানোর অভিযোগ নেসলের বিরুদ্ধে

সেরেল্যাকে অতিরিক্ত চিনি মেশানোর অভিযোগ নেসলের বিরুদ্ধে

গেরুয়া পোশাক পরা নিয়ে প্রশ্ন তোলায় তেলঙ্গানায় স্কুলে হামলা

গেরুয়া পোশাক পরা নিয়ে প্রশ্ন তোলায় তেলঙ্গানায় স্কুলে হামলা

দীর্ঘক্ষণ রোদে রেখে ১ মাসের সন্তানকে হত্যা, ৮ বছর জেল রাশিয়ান ইনফ্লুয়েন্সারের

দীর্ঘক্ষণ রোদে রেখে ১ মাসের সন্তানকে হত্যা, ৮ বছর জেল রাশিয়ান ইনফ্লুয়েন্সারের