ঢাকার লিবারেশন ডকফেস্টে লড়ছে যেসব ইরানি ছবি

Daily Inqilab অনলাইন ডেস্ক

১৫ মার্চ ২০২৩, ০৫:১৭ পিএম | আপডেট: ৩০ এপ্রিল ২০২৩, ১০:৪৫ পিএম

ঢাকায় চলমান লিবারেশন ডকফেস্ট বাংলাদেশের ১১তম আসরে সাতটি ইরানি চলচ্চিত্র প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে।

আজম মোরাদির ‘আহমাদ’ এবং ইয়াসের তালেবির ‘ডেসটিনি’ উৎসবের আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতা বিভাগে প্রদর্শনের জন্য নির্বাচিত হয়েছে। ১৪ মার্চ উৎসব শেষ হবে।

‘আহমাদ’ সিনেমাটি নির্মাণ করা হয়েছে আহমেদ আরজামন্দিকে নিয়ে। তিনি শৈশব থেকেই তার মস্তিষ্কের ক্ষতির ফলে কিছু শারীরিক এবং কথা বলার ক্ষমতা হারান। যাইহোক, তিনি অক্ষমতার সাথে মানিয়ে নিতে শেখেন এবং শিল্পে তার স্বপ্নের পিছনে তাড়া করেন।

‘ডেসটিনি’ ১৮ বছর বয়সী সাহারকে নিয়ে তৈরি করা হয়েছে। মায়ের মৃত্যুর পর ইরানের একটি বিচ্ছিন্ন গ্রামে দরিদ্র, মানসিকভাবে প্রতিবন্ধী বাবার ওপর তার দায়িত্বে পড়ে। সাহার স্বপ্ন দেখেন বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হবেন এবং একজন ডাক্তার হবেন।

জাফর নাজাফির ‘মেকআপ আর্টিস্ট’ সহ আরও পাঁচটি চলচ্চিত্র আন্তর্জাতিক সিনেমা বিভাগে প্রতিযোগিতা করছে।

চলচ্চিত্রটি এমন এক তরুণীকে নিয়ে তৈরি করা হয়েছে যে তার স্বামীর সাথে দ্বন্দ্বে জর্জরিত হয়। কারণ সে তার শিক্ষা চালিয়ে যেতে চায় এবং সিনেমায় মেকআপ আর্টিস্ট হওয়ার জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ে যেতে চায়। এজন্য মিনাকে অবশ্যই তালাক দিতে হবে অথবা তাদের স্থানীয় রীতি অনুযায়ী তার স্বামীকে আবার বিয়ে করার অনুমতি দিতে হবে এবং সন্তানটি পিতার কাছে থাকবে। মিনা তার স্বামীর জন্য নিজে থেকে একজন স্ত্রী বেছে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়, যাতে সৎ মা মিনার ছেলের প্রতি সঠিকভাবে আচরণ করে এবং দেখাশোনা করে।

এই বিভাগে প্রদর্শনের জন্য আরও বাছাই করা হয়েছে কোমেল সোহেলির ‘২১৩২ পিপল আর ওয়াচিং’, পুরিয়া নুরির ‘রিড মি, আনহার্ড ন্যারেশনস’, নাভিদ কাদিমির ‘সি, হারসেল’ এবং হামিদরেজা জেইনালির ‘দ্য পোয়েট অব মেটালিক ওয়ার্ডস’। সূত্র: তেহরান টাইমস।


বিভাগ : আন্তর্জাতিক


মন্তব্য করুন

HTML Comment Box is loading comments...

আরও পড়ুন

ইউরোর প্রাথমিক দল ঘোষণা স্পেনের,নতুন মুখ ফেরমিন লোপেজ

ইউরোর প্রাথমিক দল ঘোষণা স্পেনের,নতুন মুখ ফেরমিন লোপেজ

দেড় লাখ ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত

দেড় লাখ ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত

পানিবন্দি লাখো মানুষ

পানিবন্দি লাখো মানুষ

দুনিয়ার ধন-সম্পদ মানুষের জন্য পরীক্ষা

দুনিয়ার ধন-সম্পদ মানুষের জন্য পরীক্ষা

ভারত একনায়কতন্ত্রের দিকে যাচ্ছে, পুতিন ও শেখ হাসিনা যা করেছেন মোদি তাই করতে চাইছেন -অরবিন্দ কেজরিওয়াল

ভারত একনায়কতন্ত্রের দিকে যাচ্ছে, পুতিন ও শেখ হাসিনা যা করেছেন মোদি তাই করতে চাইছেন -অরবিন্দ কেজরিওয়াল

ফিচ রেটিংসে ফের বাংলাদেশের ঋণমান অবনমন

ফিচ রেটিংসে ফের বাংলাদেশের ঋণমান অবনমন

এডিপি বাস্তবায়ন অর্ধেকেরও কম

এডিপি বাস্তবায়ন অর্ধেকেরও কম

নিজের বুক পেতে উপকূলকে এবারও রক্ষা করল সুন্দরবন

নিজের বুক পেতে উপকূলকে এবারও রক্ষা করল সুন্দরবন

পৌনে তিন কোটি গ্রাহক বিদ্যুৎবিচ্ছিন্ন

পৌনে তিন কোটি গ্রাহক বিদ্যুৎবিচ্ছিন্ন

কসাই জিহাদকে নিয়ে কলকাতার সেই ফ্ল্যাটে ঢাকা ডিবির তদন্ত দল

কসাই জিহাদকে নিয়ে কলকাতার সেই ফ্ল্যাটে ঢাকা ডিবির তদন্ত দল

একদিনে ৩ হাজার ৩৩৫ মি.মি. বৃষ্টিপাত রেকর্ড!

একদিনে ৩ হাজার ৩৩৫ মি.মি. বৃষ্টিপাত রেকর্ড!

রিমালের প্রভাবে আন্তর্জাতিক রুটের ১০ ফ্লাইট বাতিল

রিমালের প্রভাবে আন্তর্জাতিক রুটের ১০ ফ্লাইট বাতিল

১১১ উপজেলায় কোটিপতি ১০৬ প্রার্থী

১১১ উপজেলায় কোটিপতি ১০৬ প্রার্থী

নিষেধাজ্ঞা উঠছে, সউদীর কাছে প্রাণঘাতী অস্ত্র বিক্রি করবে যুক্তরাষ্ট্র

নিষেধাজ্ঞা উঠছে, সউদীর কাছে প্রাণঘাতী অস্ত্র বিক্রি করবে যুক্তরাষ্ট্র

রাখাইনে নির্বিচারে মুসলিম নিধন ও শিরোñেদ চালাচ্ছে আর্মি

রাখাইনে নির্বিচারে মুসলিম নিধন ও শিরোñেদ চালাচ্ছে আর্মি

শরণার্থী শিবিরে ইসরাইলি হামলায় জীবন্ত পুড়ে মরল অসহায় ফিলিস্তিনিরা

শরণার্থী শিবিরে ইসরাইলি হামলায় জীবন্ত পুড়ে মরল অসহায় ফিলিস্তিনিরা

একদিনে ১৩ জনের করোনা শনাক্ত

একদিনে ১৩ জনের করোনা শনাক্ত

মসজিদসমূহ মুসলমানদের সামনে বাতিঘরের ভূমিকা পালন করেছে

মসজিদসমূহ মুসলমানদের সামনে বাতিঘরের ভূমিকা পালন করেছে

সিট বাণিজ্য বন্ধ হোক

সিট বাণিজ্য বন্ধ হোক

ছাত্রজীবন থেকেই অসাধুতার শুরু!

ছাত্রজীবন থেকেই অসাধুতার শুরু!