গঙ্গাচুক্তি নবায়নের রসায়ন এবার ভিন্ন হবে

নদীর বেঁচে থাকার অধিকার আছে

Daily Inqilab স্টাফ রিপোর্টার

২৩ জুলাই ২০২৩, ১১:৫৪ পিএম | আপডেট: ২৩ জুলাই ২০২৩, ১১:৫৪ পিএম

১৯৯৬ সালে ৩০ বছরের জন্য গঙ্গাচুক্তি সই করেছিল বাংলাদেশ ও ভারত। ওই চুক্তির নবায়নের জন্য আলোচনা শুরু হবে আগামী দুই-তিন বছরের মধ্যে। নদীর বেঁচে থাকার অধিকার আছে এবং সেজন্য পদক্ষেপ নিতে হবে। পানি ও নদী বিষয়টি বর্তমানে ভ‚-রাজনীতির অংশ এবং এখন বাংলাদেশকে সেভাবে তৈরি হতে হবে। এবারের আলোচনা আর আগের বারের মতো হবে না। গঙ্গাচুক্তি নবায়নের রসায়ন এবার সম্পূর্ণ ভিন্ন হবে দাবি করছেন বিশেষজ্ঞরা।

গতকাল রোববার রাজধানীর নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয় আয়োজিত দক্ষিণ এশিয়ার নদীবিষয়ক এক আন্তর্জাতিক সেমিনারে বক্তারা একথা বলেন। সাবেক পররাষ্ট্র সচিব ও জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিজিটিং প্রফেসর মো. শহীদুল হক বলেন, গঙ্গাচুক্তি নবায়নের রসায়ন এবার সম্পূর্ণ ভিন্ন হবে। গঙ্গার পানিচুক্তির জন্য দুই দেশের মধ্যে আলোচনা আগামী দুই থেকে তিন বছরের মধ্যে শুরু হবে। ১৯৯৬ সালে যেভাবে গঙ্গাচুক্তি নিয়ে আলোচনা হয়েছিল, সেভাবে এখন আলোচনা হবে না। এখন মানুষের সম্পৃক্ততা অনেক বেশি থাকবে, যেটি ১৯৯৬ সালে ছিলো না। ওই সময়ে বিচ্ছিন্নভাবে এবং সবার অন্তরালে আলোচনা হয়েছিল। এবার সেটি হবে না। শহীদুল হক বলেন, বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে খুব মধুর সম্পর্ক থাকলেও নদী ও পানি সংক্রান্ত বিষয়টি দ্বিপক্ষীয় সম্পর্কে রাজনৈতিকভাবে অত্যন্ত জটিল বিষয়। একইসঙ্গে এটি একটি নিরাপত্তা বিষয়। তিনি বলেন, উত্তর-পূর্ব ভারত-বাংলাদেশ- বঙ্গোপসাগর করিডোর নিয়ে আলোচনা চলছে। এই ব্যবস্থা কার্যকরী করতে হলে দুটি জিনিস দরকার। প্রথমটি হচ্ছে অভিবাসন ও চলাচল (মাইগ্রেশন অ্যান্ড মোবিলিটি) এবং দ্বিতীয়টি হচ্ছে পানি। আমরা কি এই নিরবচ্ছিন্ন করিডোর তৈরি করতে পারবো?’ পানি ও নদী বিষয়টি বর্তমানে ভ‚-রাজনীতির অংশ এবং এখন বাংলাদেশকে সেভাবে তৈরি হতে হবে বলে তিনি জানান।

সাবেক এই পররাষ্ট্র সচিব বলেন, ভ‚-রাজনীতি ভালো বা মন্দ শব্দ নয়। এটি একটি খেলা এবং এটি সবদেশ খেলে থাকে। কেউ ভালো খেলে কেউ খারাপ খেলে। এটি নির্ভর করে কে কত ভালো খেলোয়ার। ক‚টনীতিকদের ভ‚-রাজনীতিকে ভয় পেলে চলবে না। বরং এটিকে ব্যবহার করে দেশের জন্য মঙ্গলজনক সুবিধা আনতে হবে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষক অধ্যাপক ইমতিয়াজ আহমেদ বলেন, আমরা বাংলাদেশকে নদীমাতৃক দেশ বলে থাকি, কিন্তু মন-মানসিকতায় আমরা ভ‚মিকেন্দ্রিক। যদি আমরা আমাদের অবকাঠামো দেখি, সেটি প্রায় সবকিছু ভ‚মিকেন্দ্রিক। যখন আমরা আন্তঃনদীর কথা বলি, সেটি ভ‚-রাজনীতির অংশ। যখন দুই দেশ আলোচনা করে, সেটি অবশ্যই রাজনীতি।

অধ্যাপক ইমতিয়াজ বলেন, পানি শুধুমাত্র অক্সিজেন ও হাইড্রোজেন মিশ্রন নয়। বর্তমানে এর সঙ্গে আরও চারটি বিষয় জড়িত– পাওয়ার, পলিটিক্স, প্রফিট এবং পলিউশন। ভ‚-রাজনীতিতে বাংলাদেশের গুরুত্ব বাড়ছে অর্থনৈতিক কারণে জানিয়ে তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশ আগেও ছিল, কিন্তু তখন অর্থনৈতিক সক্ষমতা কম ছিলে। কিন্তু এখন সেটি বেড়েছে।

অ্যাকশন এইডের বাংলাদেশ প্রধান ফারাহ কবির বলেন, পানিকে আমরা সাধারণ সম্পদ হিসেবে বিবেচনা করি। কিন্তু এখানে সাধারণ মানুষের অধিকার কম। আগে পানির প্রাচুর্য থাকলেও এখন জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে পানির স্বল্পতা দেখা দিয়েছে। আগে যেভাবে বৃষ্টি হতো এখন আর সেভাবে হয় না। ভারতের কল্যাণী বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক প্রতীপ চট্টোপ্যাধ্যায় বলেন, পানিকে জাতীয় সম্পদ নয়, বরং প্রাকৃতিক সম্পদ হিসেবে বিবেচনা করা দরকার। নদীর বেঁচে থাকার অধিকার আছে এবং সেজন্য পদক্ষেপ নিতে হবে।##

 

 

 


বিভাগ : জাতীয়


মন্তব্য করুন

HTML Comment Box is loading comments...

আরও পড়ুন

কুষ্টিয়ায় পরকীয়ার জেরে যুবককে পিটিয়ে হত্যা, আটক ৩

কুষ্টিয়ায় পরকীয়ার জেরে যুবককে পিটিয়ে হত্যা, আটক ৩

কুষ্টিয়ায় বালু বোঝাই ট্রলি চাপায় বৃদ্ধা নিহত

কুষ্টিয়ায় বালু বোঝাই ট্রলি চাপায় বৃদ্ধা নিহত

বঙ্গোপসাগরে শক্তিশালী হচ্ছে নিম্নচাপ, আঘাত হানতে পারে যেসব জেলায়

বঙ্গোপসাগরে শক্তিশালী হচ্ছে নিম্নচাপ, আঘাত হানতে পারে যেসব জেলায়

মার্কিন সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করার ডিক্রিতে সাক্ষর করলেন পুতিন

মার্কিন সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করার ডিক্রিতে সাক্ষর করলেন পুতিন

আজিজের নিষেধাজ্ঞা ও বেনজীরের সম্পদ ক্রোক জাতির জন্য লজ্জার : ডা. শাহাদাত

আজিজের নিষেধাজ্ঞা ও বেনজীরের সম্পদ ক্রোক জাতির জন্য লজ্জার : ডা. শাহাদাত

অবরুদ্ধ গাজায় কোরআন পোড়াচ্ছেন ইসরায়েলি সেনারা

অবরুদ্ধ গাজায় কোরআন পোড়াচ্ছেন ইসরায়েলি সেনারা

কৈলাশটিলা-৮ কূপ থেকে প্রতিদিন মিলবে ২১ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস

কৈলাশটিলা-৮ কূপ থেকে প্রতিদিন মিলবে ২১ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস

একাকী নামাজ পড়ার সময় ইকামত দেওয়া প্রসঙ্গে।

একাকী নামাজ পড়ার সময় ইকামত দেওয়া প্রসঙ্গে।

জলাবদ্ধতার নিরসন চাই

জলাবদ্ধতার নিরসন চাই

রাশিয়া মহাকাশে উপগ্রহ বিধ্বংসী অস্ত্র উৎক্ষেপন করেছে: যুক্তরাষ্ট্র

রাশিয়া মহাকাশে উপগ্রহ বিধ্বংসী অস্ত্র উৎক্ষেপন করেছে: যুক্তরাষ্ট্র

ফরিদপুরে বোমায় উড়ে গেল যুবকের আঙ্গুল চোখ ও কনুই

ফরিদপুরে বোমায় উড়ে গেল যুবকের আঙ্গুল চোখ ও কনুই

ইন্দুরকানীতে ৪র্থ শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে যুবক গ্রেফতার

ইন্দুরকানীতে ৪র্থ শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে যুবক গ্রেফতার

ঘুমের মধ্যেই মৃত্যু ‘বিশ্বের সবচেয়ে সুখী কুকুর’ কাবোসুর

ঘুমের মধ্যেই মৃত্যু ‘বিশ্বের সবচেয়ে সুখী কুকুর’ কাবোসুর

কালিয়াকৈরে ভয়াবহ আগুনে কলোনির শতাধিক ঘর পুড়ে ছাই

কালিয়াকৈরে ভয়াবহ আগুনে কলোনির শতাধিক ঘর পুড়ে ছাই

শেষ পর্যস্ত শাভিকে ছাঁটাই করল বার্সা

শেষ পর্যস্ত শাভিকে ছাঁটাই করল বার্সা

নেত্রকোণার পূর্বধলায় চিরকুট লেখে ট্রেনের নীচে ঝাঁপ দিয়ে নারীর আত্মহত্যা

নেত্রকোণার পূর্বধলায় চিরকুট লেখে ট্রেনের নীচে ঝাঁপ দিয়ে নারীর আত্মহত্যা

বিএনপি-জামায়াত দেশের রাষ্ট্রীয় ব্যবস্থা ধ্বংসের ষড়যন্ত্র করছে : নাছিম

বিএনপি-জামায়াত দেশের রাষ্ট্রীয় ব্যবস্থা ধ্বংসের ষড়যন্ত্র করছে : নাছিম

মাঠে নামতে মুখিয়ে আছে ইংল্যান্ড-পাকিস্তান

মাঠে নামতে মুখিয়ে আছে ইংল্যান্ড-পাকিস্তান

২১শ’ সাল নাগাদ বিশ্বে শিশু জন্মের হার ১.৭ শতাংশে নামবে

২১শ’ সাল নাগাদ বিশ্বে শিশু জন্মের হার ১.৭ শতাংশে নামবে

উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আগুন, ২ শতাধিক শেড পুড়ে ছাই

উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আগুন, ২ শতাধিক শেড পুড়ে ছাই