দরিদ্র দেশে বিনামূল্যে সার সরবরাহে বাধা দিচ্ছে পশ্চিম : পুতিন মস্কোর দুটি অনাবাসিক ভবনে ড্রোন হামলা পোল্যান্ডে হামলা করতে চায় ওয়াগনার একদিনে ৩০ জনেরও বেশি ইউক্রেনীয় সেনা বন্দি মনোবল হারাচ্ছে ইউক্রেনের সেনা ইউক্রেন শুধুমাত্র আগস্টের শেষ পর্যন্ত আক্রমণ চালিয়ে যেতে পারবে

তেলযুদ্ধে জয়ী হয়েছে রাশিয়া

Daily Inqilab ইনকিলাব ডেস্ক :

২৪ জুলাই ২০২৩, ১১:৩৫ পিএম | আপডেট: ২৫ জুলাই ২০২৩, ১২:০৮ এএম

রাশিয়ার ইউরাল তেলের এক ব্যারেলের দাম সাম্প্রতিক দিনগুলিতে নির্ধারিত মূল্যের সীমা ছাড়িয়ে। গত ডিসেম্বরে যুক্তরাষ্ট্র ও মিত্ররা তেলের মূল্য বেঁধে দেয়। তবে বর্তমানে উরাল মানের অপরিশোধিত তেলের প্রতি ব্যারেলের মূল্য ৬০ ডলার ছাড়িয়েছে। এটি ইঙ্গিত দিচ্ছে যে, রাশিয়া বিশ্ব তেলের বাজারে প্রভাব বিস্তারের যুদ্ধে জয়ী হয়েছে।

পণ্য-ডেটা ফার্ম আরগাস মিডিয়ার হিসাব উদ্ধৃত করে মার্কিন সংবাদমাধ্যম ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল এ তথ্য জনিয়েছে। প্রতিবেদনে বলা হয়, রাশিয়া ‘সাম্প্রতিক দিনগুলিতে বিশ্বব্যাপী তেলের বাজারের উপর প্রভাব বিস্তারের লড়াইয়ে একটি বিজয় অর্জন করেছে’ কারণ ‘মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র এবং তার মিত্ররা গত ডিসেম্বরে অভিনব নিষেধাজ্ঞা নীতি চালু করার পর থেকে তাদের ফ্ল্যাগশিপ ইউরাল গ্রেডের তেলের দাম ৬০ ডলার প্রতি ব্যারেল সীমা লঙ্ঘন করেছে।’
সংবাদপত্রটি উল্লেখ করেছে যে, এটি ইঙ্গিত দেয় মস্কো ‘অন্তত আংশিকভাবে, বিধিনিষেধের সাথে সামঞ্জস্য করতে সফল হয়েছে।’ ‘উচ্চ মূল্য রাশিয়ার তেল-রপ্তানি আয়কে শক্তিশালী করতে পারে, যা গত মাসে এক বছর আগের তুলনায় তাদের স্তরের অর্ধেকে নেমে এসেছে,’ সংবাদপত্রটি উল্লেখ করেছে, ‘সীমা নির্ধারণ, ইউরোপে রাশিয়ান তেলের উপর নিষেধাজ্ঞা এবং সাম্প্রতিক রপ্তানি হ্রাস এ বছর জ্বালানি থেকে রাশিয়ার ট্যাক্স কমিয়েছে, বাজেটকে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে।’

এছাড়া ব্রেন্ট অপরিশোধিত তেলের সঙ্গে উরাল মানের রুশ তেলের মূল্যের পার্থক্য এখন ব্যারেল প্রতি ২০ ডলার। যদিও তা যুদ্ধের আগের তুলনায় অনেক বেশি। কিন্তু জানুয়ারি থেকে এটি অর্ধেকে নেমে এসেছে যা কিনা নিষেধাজ্ঞার চাপ কমার আরেকটি ইঙ্গিত। এদিকে ওপেকপ্লাসের উৎপাদন কমানোর সিদ্ধান্তটি রাশিয়ার অপরিশোধিত তেলের দাম পশ্চিমাদের বেঁধে দেয়া মূল্য ছাড়িয়ে যেতে সহযোগিতা করেছে। এশিয়ায় তেলের তীব্র চাহিদারও এক্ষেত্রে ভূমিকা রয়েছে।

এদিকে, রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভøাদিমির পুতিন এ সপ্তাহের পরে সেন্ট পিটার্সবার্গে অনুষ্ঠিতব্য রাশিয়া-আফ্রিকা শীর্ষ সম্মেলনের জন্য তার নিবন্ধে লিখেছেন, রাশিয়া যখন বিশ্বের দরিদ্রতম দেশগুলিতে বিনামূল্যে সার পাঠাচ্ছে, পশ্চিমারা সরবরাহের একটি উল্লেখযোগ্য অংশ অবরুদ্ধ করে ‘অন্যায়ভাবে’ বাধা তৈরি করছে।

‘প্রয়োজনে দরিদ্রতম দেশগুলোতে বিনামূল্যে খনিজ সার সরবরাহ করার জন্য আমাদের প্রচেষ্টার ক্ষেত্রেও প্রতিবন্ধকতা তৈরি করা হয়েছে। ইউরোপীয় বন্দরে অবরুদ্ধ ২ লাখ ৬২ হাজার মেট্রিক টন পণ্যের মধ্যে, মাত্র দুটি চালান– ২০ হাজার মেট্রিক টনের একটি মালাউইতে এবং ৩৪ হাজার মেট্রিক টনের অপর চালানটি কেনিয়ায় বিতরণ করা হয়েছিল। ইউরোপীয়রা এখনও বাকি পণ্য আটকে রেখেছে,’ পুতিন আক্ষেপ করে বলেছেন। রাশিয়ান নেতা আরও বলেন, ‘এবং এটি একটি সম্পূর্ণরূপে মানবিক উদ্যোগ যার কথা আমরা বলছি, এটিকে যে কোনও নিষেধাজ্ঞা থেকে অব্যাহতি দেয়া উচিত।’ দ্বিতীয় রাশিয়া-আফ্রিকা শীর্ষ সম্মেলন এবং অর্থনৈতিক ফোরাম সেন্ট পিটার্সবার্গে ২৭-২৮ জুলাই অনুষ্ঠিত হবে। ‘শান্তি, নিরাপত্তা এবং উন্নয়নের জন্য’ সেøাগানের অধীনে ২২-২৪ অক্টোবর, ২০১৯ তারিখে সোচিতে প্রথম এ ধরনের ইভেন্ট অনুষ্ঠিত হয়েছিল।

মস্কোর দুটি অনাবাসিক ভবনে ড্রোন হামলা : মস্কোতে স্থানীয় সময় সোমবার ভোর ৪ টায় দুটি অনাবাসিক ভবনে ড্রোন হামলার খবর পাওয়া গেছে, মেয়র সের্গেই সোবিয়ানিন সোমবার তার টেলিগ্রাম চ্যানেলে লিখেছেন। ‘দুটি অনাবাসিক ভবনে ড্রোন হামলা আজ ভোর ৪ টার দিকে নিবন্ধিত হয়েছে, এতে কোন বড় ক্ষতি বা হতাহতের ঘটনা ঘটেনি। সমস্ত জরুরি পরিষেবা ঘটনাস্থলে কাজ করছে,’ মেয়র লিখেছেন। একজন জরুরী কর্মকর্তার মতে, মধ্য মস্কোর কমসোমলস্কি প্রসপেক্টে ১৭-এ একটি ড্রোন ভূপাতিত করা হয়েছিল এবং অন্য একটি ড্রোন দক্ষিণ মস্কোর প্রসপেক্ট লিখাচেভাতে একটি অফিস ভবনে আঘাত করেছিল। রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে ড্রোন হামলা ব্যর্থ হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে।

পোল্যান্ডে হামলা করতে চায় ওয়াগনার : বেলারুশিয়ান প্রেসিডেন্ট আলেকজান্ডার লুকাশেঙ্কো বলেছেন যে, তিনি ‘ওয়াগনার গ্রুপের মধ্যে উত্তেজনা দেখতে শুরু করেছেন, কারণ তারা ওয়ারশতে মার্চ করতে চায়’। রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভøাদিমির পুতিনের সাথে এক বৈঠকে লুকাশেঙ্কো বলেন, ‘হয়তো আমার এটা বলা উচিত নয়, কিন্তু আমি বলব। ওয়াগনার গ্রুপ আমাদের চাপ দিতে শুরু করেছে। তারা বলছে: আমরা পশ্চিমে যেতে চাই। আমাদের যেতে দিন।’ ‘আমি বললাম, কেন আপনারা পশ্চিমে যেতে চান? তারা উত্তরে বলেছে, তারা ওয়ারশ, রেজেসজো›-তে সফরে যেতে যায়,’ লুকাশেঙ্কো রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভøাদিমির পুতিনের সাথে এক বৈঠকে বলেছিলেন। ‘আমি তাদেরকে নিয়ন্ত্রণে রেখেছি, যেভাবে চুক্তি হয়েছিল। বেলারুশ তাদের সেখানে স্থানান্তর করতে চায় না, কারণ তাদের মাথা গরম। এবং তাদের কৃতিত্বের জন্য, তারা জানে যে ইউনিয়ন স্টেটের চারপাশে কী ঘটছে। এ বিষয়ে আমি কেবল একটি ধারণা দিয়েছি,’ তিনি বলেছিলেন।

একদিনে ৩০ জনেরও বেশি ইউক্রেনীয় সেনা বন্দী : রাশিয়ার ব্যাটলগ্রুপ সেন্টারের কমান্ডার আন্দ্রে মর্দভিচেভ রোববার বলেছেন, রাশিয়ান বাহিনী মাত্র একদিনে ৩১ জন ইউক্রেনীয় সেনাকে বন্দী করেছে। ‘আমি আপনাদের বলব যে, আমরা গতকাল ৩১ জন ইউক্রেনীয় সৈন্যকে বন্দী করেছি। কেউ আত্মসমর্পণ করেছে, অন্যরা যুদ্ধক্ষেত্রে বন্দী হয়েছে,’ তিনি সলোভিভ লাইভ টেলিভিশন চ্যানেলের সাথে একটি সাক্ষাতকারে বলেছিলেন।

মর্ডভিচেভের মতে, ইউক্রেনীয় বন্দীরা অবাক হয়ে যায় যে তাদের বন্দিদশায় নির্যাতন করা হয় না, কারণ কিয়েভের প্রচারণা তাদের নির্যাতন এবং দুর্ব্যবহারে ভয় দেখায়। ‘অনেক বন্দী আবার ফ্রন্টলাইনে পাঠানোর জন্য (ইউক্রেনে) ফিরে আসে। তারা (বন্দী অবস্থায়) তাদের সাথে কীভাবে আচরণ করা হয়েছিল এবং স্টেরিওটাইপগুলি পরিবর্তিত হয়েছে সে সম্পর্কে তারা জানায়। অনেকে এমনকি অনুরোধ করে: দয়া করে আমাদের ইউক্রেনে ছেড়ে দেবেন না। তারা বুঝতে পারে যে অদলবদলের পরে তাদের আবার যুদ্ধে পাঠানো হবে,’ তিনি বলেছিলেন। তিনি উল্লেখ করেছেন যে, ইউক্রেনীয় কমান্ড সৈন্যদের জীবনের বিষয়টি পাত্তা দেয় না এবং ইউক্রেনের ক্ষতি রাশিয়ার চেয়ে বেশি। ‘ক্ষতির জন্য, সঠিক পরিসংখ্যান উদ্ধৃত করা কঠিন। তারা লোকেদের, ক্ষয়ক্ষতির বিষয়ে চিন্তা করে না। তাদের প্রচুর লোক নিহত হয়,’ তিনি জোর দিয়ে বলেছিলেন।

মনোবল হারাচ্ছে ইউক্রেনের সেনা : ইউক্রেনের সেনাবাহিনী ভারী ক্ষয়ক্ষতি সহ্য করছে এবং ব্যর্থ পাল্টা আক্রমণাত্মক প্রচেষ্টার কারণে তাদের মনোবল হ্রাস পাচ্ছে, কিয়েভ পোস্ট পত্রিকা রোববার ইউক্রেনের সৈন্যদের উদ্ধৃত করে বলেছে। তারা সংবাদপত্রকে বলেছেন, ক্রমবর্ধমান ক্ষতির কারণে ইউক্রেনের সেনাবাহিনীর মনোবল কমে যাচ্ছে। ইউক্রেনের এক সামরিক চিকিৎসক নাম প্রকাশ না করার শর্তে সংবাদপত্রকে বলেছেন, ‘গত এক মাসে, আমরা মাত্র ১.৫ কিলোমিটার দূরত্বে অগ্রসর হয়েছি। আমরা ইঞ্চি ইঞ্চি অগ্রসর হয়েছি এবং আমি মনে করি না যে, আমরা যে পরিমাণ মানব সম্পদ এবং অস্ত্র হারিয়েছি তার তুলনায় এ অর্জন মূল্যবান।’ তিনি পরিস্থিতিকে অত্যন্ত কঠিন বলে বর্ণনা করেছেন।

ইউক্রেন শুধুমাত্র আগস্টের শেষ পর্যন্ত আক্রমণ চালিয়ে যেতে পারবে : রাশিয়ার ব্যাটলগ্রুপ সেন্টারের কমান্ডার আন্দ্রে মর্দভিচেভ রোববার বলেছেন, ইউক্রেনের সেনাবাহিনীর পাল্টা আক্রমণের জন্য পর্যাপ্ত বাহিনী থাকবে আগস্টের শেষ পর্যন্ত। ‘পাল্টা আক্রমণের জন্য তাদের বাহিনী শুধুমাত্র আগস্টের শেষ পর্যন্ত যথেষ্ট হবে। এর পরে, একটি সংক্ষিপ্ত বিরতি থাকবে। তারা শীতকালে কিছুই অর্জন করতে সক্ষম হবে না। এবং মনে হয় বসন্তের মধ্যে যুদ্ধ শেষ হয়ে যাবে,’ তিনি সোলোভিভ লাইভ টেলিভিশন চ্যানেলের সাথে একটি সাক্ষাতকারে বলেছিলেন।
মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিঙ্কেন এর আগে বলেছিলেন যে, ইউক্রেনের পাল্টা আক্রমণ কঠোরভাবে এগোচ্ছে। ৭ জুলাই, মার্কিন আন্ডার সেক্রেটারি অফ ডিফেন্স ফর পলিসি কলিন কাহল বলেছিলেন যে, ইউক্রেনীয় সৈন্যরা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রত্যাশার চেয়ে ধীরে ধীরে অগ্রসর হচ্ছে তবে ফলাফল সম্পর্কে কথা বলার সময় এখনও হয়নি। সিএনএন জুলাইয়ের শুরুতে বলেছিল যে, সংঘাত দীর্ঘায়িত হলে ইউক্রেনের প্রতি পশ্চিমাদের সমর্থন দুর্বল হতে পারে।

ইউক্রেনের সেনাবাহিনী জুনের শুরু থেকে আক্রমণ চালানোর ব্যর্থ প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রী সের্গেই শোইগু ১১ জুলাই বলেছেন যে, ৪ জুন থেকে ইউক্রেনের সেনাবাহিনী ২৬ হাজার সৈন্য এবং ৩ হাজার আর্টিলারি হারিয়েছে। রুশ প্রেসিডেন্ট ভøাদিমির পুতিনের মতে, ইউক্রেনের বাহিনী কোনো ক্ষেত্রেই সাফল্যের মুখ দেখছে না। সূত্র : তাস, বিবিসি, ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল।


বিভাগ : জাতীয়


মন্তব্য করুন

HTML Comment Box is loading comments...

আরও পড়ুন

কুষ্টিয়ায় পরকীয়ার জেরে যুবককে পিটিয়ে হত্যা, আটক ৩

কুষ্টিয়ায় পরকীয়ার জেরে যুবককে পিটিয়ে হত্যা, আটক ৩

কুষ্টিয়ায় বালু বোঝাই ট্রলি চাপায় বৃদ্ধা নিহত

কুষ্টিয়ায় বালু বোঝাই ট্রলি চাপায় বৃদ্ধা নিহত

বঙ্গোপসাগরে শক্তিশালী হচ্ছে নিম্নচাপ, আঘাত হানতে পারে যেসব জেলায়

বঙ্গোপসাগরে শক্তিশালী হচ্ছে নিম্নচাপ, আঘাত হানতে পারে যেসব জেলায়

মার্কিন সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করার ডিক্রিতে সাক্ষর করলেন পুতিন

মার্কিন সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করার ডিক্রিতে সাক্ষর করলেন পুতিন

আজিজের নিষেধাজ্ঞা ও বেনজীরের সম্পদ ক্রোক জাতির জন্য লজ্জার : ডা. শাহাদাত

আজিজের নিষেধাজ্ঞা ও বেনজীরের সম্পদ ক্রোক জাতির জন্য লজ্জার : ডা. শাহাদাত

অবরুদ্ধ গাজায় কোরআন পোড়াচ্ছেন ইসরায়েলি সেনারা

অবরুদ্ধ গাজায় কোরআন পোড়াচ্ছেন ইসরায়েলি সেনারা

কৈলাশটিলা-৮ কূপ থেকে প্রতিদিন মিলবে ২১ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস

কৈলাশটিলা-৮ কূপ থেকে প্রতিদিন মিলবে ২১ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস

একাকী নামাজ পড়ার সময় ইকামত দেওয়া প্রসঙ্গে।

একাকী নামাজ পড়ার সময় ইকামত দেওয়া প্রসঙ্গে।

জলাবদ্ধতার নিরসন চাই

জলাবদ্ধতার নিরসন চাই

রাশিয়া মহাকাশে উপগ্রহ বিধ্বংসী অস্ত্র উৎক্ষেপন করেছে: যুক্তরাষ্ট্র

রাশিয়া মহাকাশে উপগ্রহ বিধ্বংসী অস্ত্র উৎক্ষেপন করেছে: যুক্তরাষ্ট্র

ফরিদপুরে বোমায় উড়ে গেল যুবকের আঙ্গুল চোখ ও কনুই

ফরিদপুরে বোমায় উড়ে গেল যুবকের আঙ্গুল চোখ ও কনুই

ইন্দুরকানীতে ৪র্থ শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে যুবক গ্রেফতার

ইন্দুরকানীতে ৪র্থ শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে যুবক গ্রেফতার

ঘুমের মধ্যেই মৃত্যু ‘বিশ্বের সবচেয়ে সুখী কুকুর’ কাবোসুর

ঘুমের মধ্যেই মৃত্যু ‘বিশ্বের সবচেয়ে সুখী কুকুর’ কাবোসুর

কালিয়াকৈরে ভয়াবহ আগুনে কলোনির শতাধিক ঘর পুড়ে ছাই

কালিয়াকৈরে ভয়াবহ আগুনে কলোনির শতাধিক ঘর পুড়ে ছাই

শেষ পর্যস্ত শাভিকে ছাঁটাই করল বার্সা

শেষ পর্যস্ত শাভিকে ছাঁটাই করল বার্সা

নেত্রকোণার পূর্বধলায় চিরকুট লেখে ট্রেনের নীচে ঝাঁপ দিয়ে নারীর আত্মহত্যা

নেত্রকোণার পূর্বধলায় চিরকুট লেখে ট্রেনের নীচে ঝাঁপ দিয়ে নারীর আত্মহত্যা

বিএনপি-জামায়াত দেশের রাষ্ট্রীয় ব্যবস্থা ধ্বংসের ষড়যন্ত্র করছে : নাছিম

বিএনপি-জামায়াত দেশের রাষ্ট্রীয় ব্যবস্থা ধ্বংসের ষড়যন্ত্র করছে : নাছিম

মাঠে নামতে মুখিয়ে আছে ইংল্যান্ড-পাকিস্তান

মাঠে নামতে মুখিয়ে আছে ইংল্যান্ড-পাকিস্তান

২১শ’ সাল নাগাদ বিশ্বে শিশু জন্মের হার ১.৭ শতাংশে নামবে

২১শ’ সাল নাগাদ বিশ্বে শিশু জন্মের হার ১.৭ শতাংশে নামবে

উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আগুন, ২ শতাধিক শেড পুড়ে ছাই

উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আগুন, ২ শতাধিক শেড পুড়ে ছাই