আ.লীগ কখনো চায়নি বাংলাদেশ স্বাধীন হোক : মেজর হাফিজ

Daily Inqilab ইনকিলাব ডেস্ক

২০ মার্চ ২০২৩, ০৩:৫২ পিএম | আপডেট: ৩০ এপ্রিল ২০২৩, ০১:১২ পিএম

বাংলাদেশ স্বাধীন হোক— সেটা আওয়ামী লীগ কখনো চায়নি বলে দাবি করেছেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মেজর (অব.) হাফিজ উদ্দিন আহমেদ। তিনি বলেন, মওলানা ভাসানী টেপ রেকর্ডার নিয়ে শেখ মুজিবুর রহমানের কাছে গিয়ে বলেছিল, তুমি স্বাধীনতা ঘোষণা করো। তখন তিনি বলেছিলেন, আমি বিচ্ছিন্নতাবাদী নেতা হতে চাই না। সোমবার (২০ মার্চ) দুপুরে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে এক আলোচনা সভায় এসব কথা বলেন হাফিজ উদ্দিন। রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন শীর্ষক এ আলোচনা সভার আয়োজন করে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন জাতীয় কমিটি।

বিএনপির এই ভাইস চেয়ারম্যান বলেন, জিয়াউর রহমান সেদিন স্বাধীনতার ঘোষণা না দিলে এই দেশে মুক্তিযুদ্ধ হতো না। অথচ এই আওয়ামী লীগ নিজেদের মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তি হিসেবে দাবি করে। ২০২৩ সালে (আগামী জাতীয় দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনের বছর) আরেকটি মুক্তিযুদ্ধ করতে হবে মন্তব্য করে হাফিজ উদ্দিন বলেন, আর এই যুদ্ধে নেতৃত্ব দেবে বিএনপি এবং আমাদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান। এ যুদ্ধের মাধ্যমে গণতন্ত্র মুক্ত করা হবে। আমরা যে বীরের জাতি তা আবারও প্রমাণ করতে হবে।

আজ বাংলাদেশকে আন্তর্জাতিকভাবে মানবাধিকার লঙ্ঘনকারী দেশ হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে মন্তব্য করে তিনি বলেন, বারবার বলা হচ্ছে জনগণের অধিকার ফিরিয়ে দিন। কিন্তু আওয়ামী লীগ ভ্রূক্ষেপ করছে না, বরং ইভিএমের মাধ্যমে কারচুপি করে আবার একদলীয় শাসন কায়েম করতে চায়। হাফিজ উদ্দিন বলেন, জাতিসংঘে রোহিঙ্গা সমস্যার সমাধান নিয়ে কথা উঠলে সেখানে চীন, ভারত ও রাশিয়া মিয়ানমারের পক্ষে অবস্থান নেওয়ায় এ সংকট সমাধান করতে পারছে না। বর্তমান শাসকগোষ্ঠীর পার্শ্ববর্তী দেশ প্রীতির কারণে রোহিঙ্গা সংকট সমাধান হচ্ছে না।

বাংলাদেশ আজ বন্ধুশূন্য একটি রাষ্ট্র— দাবি করে বিএনপির এই ভাইস চেয়ারম্যান বলেন, রোহিঙ্গা ইস্যুতে পৃথিবীর দুএকটি মুসলিম রাষ্ট্র ছাড়া কেউ সরাসরি বাংলাদেশকে সমর্থন করেনি। সেই দুএকটি রাষ্ট্রও তেমন ক্ষমতাধর নয়। ভারতের সীমান্তে কোনো রোহিঙ্গাকে আশ্রয় দেওয়া হয়নি উল্লেখ করে তিনি বলেন, অথচ এই সরকার বলছে ভারত না চাইতে আমরা সব দিয়েছি। এই সরকার যা কিছু করছে তা প্রতিবেশী রাষ্ট্রকে খুশি করার জন্য।

উপযুক্ত সময়ে বাংলাদেশে অবস্থানরত ১২ লাখ রোহিঙ্গাকে সামরিক প্রশিক্ষণ দিয়ে তাদের দেশে পাঠিয়ে দেওয়া হবে উল্লেখ করে হাফিজ উদ্দিন বলেন, তখন তারা নিজেদের অধিকার নিজেরাই আদায় করতে পারবে। আয়োজক সংগঠনের সভাপতি হারুনূর রশিদের সভাপতিত্বে সভায় উপস্থিত ছিলেন রাষ্ট্র সংস্কার আন্দোলনের আহ্বায়ক হাসনাত কাইয়ূম, জাসদের সহ সভাপতি এম জাবির প্রমুখ।


বিভাগ : জাতীয়


মন্তব্য করুন

HTML Comment Box is loading comments...

আরও পড়ুন

ঘূর্ণিঝড় রেমাল : সব মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ছুটি বাতিল

ঘূর্ণিঝড় রেমাল : সব মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ছুটি বাতিল

ফের পুতিনের বিরুদ্ধে আপত্তিকর বক্তব্য বাইডেনের

ফের পুতিনের বিরুদ্ধে আপত্তিকর বক্তব্য বাইডেনের

দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া রুটে লঞ্চ চলাচল বন্ধ

দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া রুটে লঞ্চ চলাচল বন্ধ

ভয়েস চেঞ্জ অ্যাপে গলা বদলে ৭ শিক্ষার্থীকে ধর্ষণ

ভয়েস চেঞ্জ অ্যাপে গলা বদলে ৭ শিক্ষার্থীকে ধর্ষণ

ঘূর্ণিঝড় ‘রেমাল’ : বন্ধ হলো বরিশাল বিমানবন্দরের সব কার্যক্রম

ঘূর্ণিঝড় ‘রেমাল’ : বন্ধ হলো বরিশাল বিমানবন্দরের সব কার্যক্রম

হাতিয়ার সঙ্গে সারা দেশের নৌ চলাচল বন্ধ

হাতিয়ার সঙ্গে সারা দেশের নৌ চলাচল বন্ধ

রয়েল এয়ার ফোর্সের বিমান বিধ্বস্ত, পাইলট নিহত

রয়েল এয়ার ফোর্সের বিমান বিধ্বস্ত, পাইলট নিহত

কুয়াকাটায় আবাসিক হোটেলগুলোকে আশ্রয়স্থল হিসাবে খুলে দেয়া হয়েছে

কুয়াকাটায় আবাসিক হোটেলগুলোকে আশ্রয়স্থল হিসাবে খুলে দেয়া হয়েছে

রাজকোটে গেমিং জোন অগ্নিকাণ্ডে নিহত বেড়ে ৩২

রাজকোটে গেমিং জোন অগ্নিকাণ্ডে নিহত বেড়ে ৩২

ঘূর্ণিঝড় রেমালের প্রভাবে পশ্চিমবঙ্গে রেড অ্যালার্ট জারি

ঘূর্ণিঝড় রেমালের প্রভাবে পশ্চিমবঙ্গে রেড অ্যালার্ট জারি

উপকূলে রেমালের প্রভাব, আতঙ্ক জনমনে

উপকূলে রেমালের প্রভাব, আতঙ্ক জনমনে

যশোরে 'রেমাল' মোকাবিলায় ২২৪৫ আশ্রয়কেন্দ্র প্রস্তুত

যশোরে 'রেমাল' মোকাবিলায় ২২৪৫ আশ্রয়কেন্দ্র প্রস্তুত

উখিয়ায় ১০ কোটি টাকার ক্রিস্টাল মেথসহ ১ রোহিঙ্গা যুবক আটক

উখিয়ায় ১০ কোটি টাকার ক্রিস্টাল মেথসহ ১ রোহিঙ্গা যুবক আটক

নোয়াখালীতে ইউপি সদস্যকে কুপিয়ে জখম করায় তরুণকে পিটিয়ে হত্যা

নোয়াখালীতে ইউপি সদস্যকে কুপিয়ে জখম করায় তরুণকে পিটিয়ে হত্যা

গরমে সিদ্ধ হচ্ছে উত্তর ভারত, তাপমাত্রা ৫০ ডিগ্রি ছুঁই ছুঁই

গরমে সিদ্ধ হচ্ছে উত্তর ভারত, তাপমাত্রা ৫০ ডিগ্রি ছুঁই ছুঁই

সিদ্ধিরগঞ্জে ময়লার গাড়ির ধাক্কায় গর্ভবতী নারী নিহত

সিদ্ধিরগঞ্জে ময়লার গাড়ির ধাক্কায় গর্ভবতী নারী নিহত

চিনে রাষ্ট্রিয়ভাবে মসজিদের আকৃতিকে প্যাগোডার আকৃতিতে বদলে ফেলা হয়

চিনে রাষ্ট্রিয়ভাবে মসজিদের আকৃতিকে প্যাগোডার আকৃতিতে বদলে ফেলা হয়

আজ গুলশানে দেখা মিলবে তুর্কি অভিনেতা বুরাকের

আজ গুলশানে দেখা মিলবে তুর্কি অভিনেতা বুরাকের

অর্ধশত শিক্ষার্থীকে শ্লীলতাহানি, শিক্ষক গ্রেপ্তার

অর্ধশত শিক্ষার্থীকে শ্লীলতাহানি, শিক্ষক গ্রেপ্তার

বাস্তবতার ভিত্তিতে ইউক্রেনের সঙ্গে আলোচনা করবে রাশিয়া: পুতিন

বাস্তবতার ভিত্তিতে ইউক্রেনের সঙ্গে আলোচনা করবে রাশিয়া: পুতিন