ফ্যাসিবাদী সরকারের পতন ঘটিয়েই কারাবন্দি আলেমদের মুক্ত করা হবে বাংলাদেশ খেলাফত যুব মজলিস

Daily Inqilab স্টাফ রিপোর্টার

১৫ সেপ্টেম্বর ২০২৩, ০৬:৫২ পিএম | আপডেট: ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২৩, ০৬:৫২ পিএম

খুনের আসামীরা জামিনে মুক্তি পেলেও কারাবন্দি মাওলানা মামুনুল হককে মুক্তি দেয়া হচ্ছে না। আড়াই বছর ধরে মাওলানা মামুনুল হককে করাবন্দি রেখে সাংবিধানিক অধিকার থেকে বঞ্চিত করা হচ্ছে। কারাবন্দি নির্দোষ আলেমদের মুক্তি না দিয়ে সরকার মানবাধিকার লঙ্ঘন করছে। ফ্যাসিবাদী সরকারের পতন ঘটিয়েই কারাবন্দি আলেমদের মুক্ত করা হবে। বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের সাবেক মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হকসহ কারাবন্দি আলেমদের দ্রুত মুক্তির দাবিতে আজ বাদ জুমা বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদের উত্তর গেইটে বাংলাদেশ খেলাফত যুব মজলিসের উদ্যোগে বিক্ষোভ সমাবেশে নেতৃবৃন্দ এসব কথা বলেন।
যুব মজলিস ঢাকা মহানগরের সভাপতি মাওলানা জাহিদুজ্জামানের সভাপতিত্বে ও সহ-সভাপতি মাওলানা আব্দুল্লাহ আশরাফ ও মুর্শিদুল আলম সিদ্দিকীর যৌথ পরিচালনায় বিক্ষোভ সমাবেশে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন , বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা আতাউল্লাহ আমিন, মাওলানা আবুল হাসানাত জালালী, মাওলানা ফজলুর রহমান, মাওলানা রকিবুল ইসলাম, মাওলানা আনোয়ার হোসেন গাজী ও দিদারুল হক। সমাবেশের পরে একটি বিক্ষোভ মিছিল বাইতুল মোকাররমের উত্তর গেইট থেকে শুরু হয়ে নাইটেঙ্গেল মোড় হয়ে পুরানা পল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে এসে শেষ হয়।
সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মাওলানা আতাউল্লাহ আমীন বলেন, দেশের ৯০ ভাগ মানুষ মাওলানা মামুনুল হকের মুক্তির পক্ষে। আদালতের দোহাই দিয়ে বন্দি রাখার এই মিথ্যা প্রহসন বন্ধ করুন। আপনারা মামুনুল হকসহ বিরোধী মত দমনে বিচার বিভাগকে হাতিয়ার বানিয়েছেন। এভাবে একটি দেশ চলতে পারে না। আমরা এসকল অন্যায় আর অসত্যের বিরুদ্ধে আন্দোলন চালিয়েই যাব, জুলুম করে এই আন্দোলন থামিয়ে দিতে পারবেন না ইনশাআল্লাহ। তিনি বলেন, ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ম্যাখোঁ নবী (সা.) এর প্রতি বিদ্বেষ ছড়িয়েছেন। নবী বিদ্বেষী ম্যাখোঁর সাথে কোনো ঈমানদার হাত মেলাতে পারেন না। তিনি ম্যাখোঁর সাথে সখ্যতা গড়ে তোলার নিন্দা জানিয়ে বলেন, মুসলিম দেশের একজন প্রতিনিধি হিসেবে তাহাজ্জুদের কথা বলেন, কুরআন তেলাওয়াতের ছবি ভাইরাল করেন, অথচ বিশ্ব মানবতার নবীর প্রতি আপনার সামান্য ভালোবাসাও নেই। থাকলে ম্যাখোঁর সাথে হাত মেলাতে পারতেন না। বিশেষ অতিথির বক্তব্যে যুব মজলিসের কেন্দ্রীয় সভাপতি পরিষদ সদস্য মাওলানা আবুল হাসানাত জালালী বলেন, আমরা দীর্ঘদিন থেকে কারাবন্দি মাওলানা মামুনুল হকের মুক্তির দাবি করছি, সরকার কর্ণপাত করছে না। সতর্ক করে বলতে চাই, যদি না শুনেন, যদি আঙুল বাকা করতে হয়, তাহলে ক্ষমতায় থাকতে পারবেনা না। তিনি আগামী ২০ অক্টোবর আল্লামা মামুনুল হকের মুক্তির দাবিতে ঢাকায় যুব সমাবেশ সফলের আহ্বান জানান। বিশেষ অতিথির বক্তব্যে খেলাফত যুব মজলিসের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা ফজলুর রহমান বলেন, আজ যেদিকে তাকাই শুধুই সঙ্কট। নানামুখী সঙ্কটে দেশের জনগণ দিশেহার। এই সরকার নিজেদের অন্যায় ঢাকতে আলেমদের গ্রেফতার করে রেখেছে। মামুনুল হকের জনপ্রিয়তাকে সরকার ভয় করে। মামুনুল হক থাকলে তাদের দুর্নীতির বিরুদ্ধে কথা বলবে, এটাই তার অপরাধ। অধিকার সম্পাদক আদিলুর রহমানের কি অপরাধ ছিল? ২০১৩ এর শাপলা চত্বরের সত্য পরিসংখ্যান তুলে ধরা? আমরা এর তীব্র নিন্দা জানাই ও তার মুক্তি দাবি করছি। সভাপতির বক্তব্যে খেলাফত যুব মজলিস ঢাকা মহানগরের সভাপতি মাওলানা জাহিদুজ্জামান বলেন, আজ এদেশের উপর ফ্যাসিস্ট সরকার জগদ্দল পাথরের ন্যায় বসেছে। এদের হঠানো ছাড়া বাংলাদেশের জনগণের মুক্তি হবেনা। সিন্ডিকেট ভাঙতে ব্যর্থ সরকার আজগুবি খাবারের রেসিপি দিয়ে জনগণের সাথে উপহাস করছে। জনগণ থেকে বিচ্ছিন্ন এই সরকার রাজনৈতিক ভাবে খেলতে না পেরে মিথ্যা মামলা করেছে আল্লামা মামুনুল হকের বিরুদ্ধে।

 


বিভাগ : রাজনীতি


মন্তব্য করুন

HTML Comment Box is loading comments...

আরও পড়ুন

অল্পতে ফিরলেন রোহিত-কোহলি,চাপে ভারত

অল্পতে ফিরলেন রোহিত-কোহলি,চাপে ভারত

কুড়িগ্রামে তিস্তা নদীতে নৌকা ডুবিতে এখনো ৬জন নিখোঁজ : উদ্ধার ১ শিশু

কুড়িগ্রামে তিস্তা নদীতে নৌকা ডুবিতে এখনো ৬জন নিখোঁজ : উদ্ধার ১ শিশু

অতীতে কর্জ নেওয়া টাকা এখন পরিশোধ করলে কত টাকা পরিশোধ করতে হবে প্রসঙ্গে।

অতীতে কর্জ নেওয়া টাকা এখন পরিশোধ করলে কত টাকা পরিশোধ করতে হবে প্রসঙ্গে।

মতলবে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনা না ফেরার দেশে চলে গেলেন হিমেল: আটক ২

মতলবে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনা না ফেরার দেশে চলে গেলেন হিমেল: আটক ২

সেনবাগে অজ্ঞাত নারীর গলিত লাশ উদ্ধার

সেনবাগে অজ্ঞাত নারীর গলিত লাশ উদ্ধার

সিংগাইর বাসস্ট্যান্ডের পাশেই ময়লার ভাগাড়, জনদুর্ভোগ চরমে

সিংগাইর বাসস্ট্যান্ডের পাশেই ময়লার ভাগাড়, জনদুর্ভোগ চরমে

বেসরকারি হাজীরা দেশে পৌঁছেছেন

বেসরকারি হাজীরা দেশে পৌঁছেছেন

বন্যদুর্গতদের পাশে দাঁড়ানোর আহবান সিলেট জেলা বিএনপির

বন্যদুর্গতদের পাশে দাঁড়ানোর আহবান সিলেট জেলা বিএনপির

আফগানিস্তানের  বিপক্ষে টসে জিতে ব্যাটিংয়ে ভারত

আফগানিস্তানের বিপক্ষে টসে জিতে ব্যাটিংয়ে ভারত

বন্যার পেটে সিলেটের ১৫ হাজার ৭৮৯ হেক্টর জমির ফসল : দু:চিন্তায় কৃষক

বন্যার পেটে সিলেটের ১৫ হাজার ৭৮৯ হেক্টর জমির ফসল : দু:চিন্তায় কৃষক

উচ্চ পদস্থ কর্মকর্তার পর এবার ভুয়া ম্যাজিষ্ট্রেট সাজা নারী আটক

উচ্চ পদস্থ কর্মকর্তার পর এবার ভুয়া ম্যাজিষ্ট্রেট সাজা নারী আটক

সুনামগঞ্জ বন্যা মোকাবিলায় ২০টি নদীতে একসঙ্গে কাজ শুরু করবো : পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী

সুনামগঞ্জ বন্যা মোকাবিলায় ২০টি নদীতে একসঙ্গে কাজ শুরু করবো : পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী

সুপার এইটে এবার মুখোমুখি দ. আফ্রিকা-ইংল্যান্ড

সুপার এইটে এবার মুখোমুখি দ. আফ্রিকা-ইংল্যান্ড

জনগণ এখন সরকারের দুর্নীতির খেসারত দিচ্ছে  -হাসান সরকার

জনগণ এখন সরকারের দুর্নীতির খেসারত দিচ্ছে -হাসান সরকার

সস্ত্রীক মহানবী (সা.)-র রওজা জিয়ারত করলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

সস্ত্রীক মহানবী (সা.)-র রওজা জিয়ারত করলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

শাহজাদপুরে সংঘর্ষে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৩ : পুরুষশুণ্য এলাকা!

শাহজাদপুরে সংঘর্ষে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৩ : পুরুষশুণ্য এলাকা!

ইসরায়েল পরাজয় স্বীকার করেছে : হামাস নেতা গাজী হামাদ

ইসরায়েল পরাজয় স্বীকার করেছে : হামাস নেতা গাজী হামাদ

দাবদাহের কারণে বিদ্যুৎ ব্যবহার বৃদ্ধি পেয়েছে : লোডশেডিং প্রসঙ্গে সংসদে প্রতিমন্ত্রী

দাবদাহের কারণে বিদ্যুৎ ব্যবহার বৃদ্ধি পেয়েছে : লোডশেডিং প্রসঙ্গে সংসদে প্রতিমন্ত্রী

জিম্বাবুয়ে ক্রিকেটে স্যামন্স, ইব্রাহিম, চিগুম্বুরা

জিম্বাবুয়ে ক্রিকেটে স্যামন্স, ইব্রাহিম, চিগুম্বুরা

বন্ধ শিল্প প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা ৩৯৭টি : সংসদে শিল্পমন্ত্রী

বন্ধ শিল্প প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা ৩৯৭টি : সংসদে শিল্পমন্ত্রী