বালিয়াকান্দিতে জমি নিয়ে বিরোধে পুকুরে বিষ প্রয়োগে চাষীর সর্বনাশ করেছে দুবৃত্তরা

Daily Inqilab রাজবাড়ী জেলা সংবাদদাতা

১৩ মার্চ ২০২৩, ০৫:০৪ পিএম | আপডেট: ৩০ এপ্রিল ২০২৩, ১১:৫৯ পিএম

রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দিতে জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে পুকুরে বিষ প্রয়োগ করার অভিযোগ উঠেছে। এতে পুকুরের আড়াই লাখ টাকার মাছের ক্ষতি সাধন হয়েছে। রবিবার রাতে উপজেলার নারুয়া ইউনিয়নের সোনাকান্দর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।
মাছচাষী সুজিত ঠাকুর বলেন, তিনি সোনাকান্দর গ্রামের আদেল উদ্দিন খানের নিকট থেকে ১২-১৩ বছর যাবৎ পুকুর লীজ নিয়ে মাছ চাষ করে আসছেন। সোমবার সকালে খবর পান তার পুকুরে রাতে দুবৃত্তরা বিষ জাতীয় ট্যাবলেট মেরেছে। ফলে সিলভার কার্প, টাটকিনি সহ বিভিন্ন ধরনের মাছ মরে ভেসে উঠেছে। এতে তার আড়াই লাখ টাকার ক্ষতি সাধন হয়েছে। এ বিষয়ে তিনি নারুয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান বরাবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করবেন।
খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন নারুয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মোহাম্মদ জহুরুল ইসলাম, ইউপি সদস্য শহিদুল ইসলাম, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক আলমগীর মোল্লা সহ এলাকার লোকজন।
আদেল উদ্দিন খানের ছেলে ফিরোজ খান বলেন, জমি পরিমাপ করার পর পুকুরে বেড়া দিয়ে দখল করা হয়। বহিরাগত কিছু লোক এখানে এসে বেড়া দেওয়ায় সহযোগিতা করে। রাতে কারা বিষ প্রয়োগ করেছে তা বলতে পারছি না। সোমবার সকালে মাছ মরে ভেসে উঠেলে বিষয়টি টের পাই।
ওই জমির অংশিদার সিরাজুল ইসলাম খান বলেন, আমাদের ফাঁসানোর জন্য আদেল উদ্দিন খান এ কাজ করেছে বলে ধারণা করছি। তবে বিষয়টির সুষ্ঠু তদন্ত করে বিচার দাবী করছি।
নারুয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মোহাম্মদ জহুরুল ইসলাম বলেন, শনিবার এ বিরোধপুর্ণ পুকুর নিয়ে পরিমাপ করা হয়। জমি নিয়ে আদেল উদ্দিন খান, রহমান খান, সিরাজুল ইসলাম খান, সরোয়ার মোল্লা, তুহিনদের বিরোধ নিষ্পত্তি করা হয়েছে। এখন কারা বিষ প্রয়োগ করলো বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।


বিভাগ : বাংলাদেশ


মন্তব্য করুন

HTML Comment Box is loading comments...

আরও পড়ুন

গাজায় শান্তি আলোচনায় মধ্যস্থতাকারীর ভূমিকায় থাকতে চাইছে না কাতার?

গাজায় শান্তি আলোচনায় মধ্যস্থতাকারীর ভূমিকায় থাকতে চাইছে না কাতার?

মণিপুরী ছাত্র‌দের জন্য একটি আলাদা হোস্টেল তৈরির প্রতিশ্রুতি দিলেন সিসিক মেয়র আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী

মণিপুরী ছাত্র‌দের জন্য একটি আলাদা হোস্টেল তৈরির প্রতিশ্রুতি দিলেন সিসিক মেয়র আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী

আবুধাবীতে চালু হলো ইউএস বাংলার ফ্লাইট

আবুধাবীতে চালু হলো ইউএস বাংলার ফ্লাইট

বিশ্বকে বাঁচাতে জীবাশ্ম জ্বালানিতে অর্থায়ন বন্ধের দাবি তরুণদের

বিশ্বকে বাঁচাতে জীবাশ্ম জ্বালানিতে অর্থায়ন বন্ধের দাবি তরুণদের

ইরানের হামলার বিষয়ে প্রশ্ন এড়িয়েই যাচ্ছেন ব্লিনকেন

ইরানের হামলার বিষয়ে প্রশ্ন এড়িয়েই যাচ্ছেন ব্লিনকেন

রাজশাহী পবায় ট্রাক চাপায় তিন মোটরসাইকেল আরোহী নিহত, আহত ৩

রাজশাহী পবায় ট্রাক চাপায় তিন মোটরসাইকেল আরোহী নিহত, আহত ৩

নিউইয়র্কে সোনালী এক্সচেঞ্জের গ্রাহক সমাবেশ ও ক্যাম্পেইন অনুষ্ঠিত

নিউইয়র্কে সোনালী এক্সচেঞ্জের গ্রাহক সমাবেশ ও ক্যাম্পেইন অনুষ্ঠিত

বিমানবন্দর এলাকায় বাসের ধাক্কায় এক প্রকৌশলী নিহত

বিমানবন্দর এলাকায় বাসের ধাক্কায় এক প্রকৌশলী নিহত

ফিলিস্তিন জাতিসংঘের সদস্য না হওয়ায় দুঃখ প্রকাশ আরব দেশগুলোর

ফিলিস্তিন জাতিসংঘের সদস্য না হওয়ায় দুঃখ প্রকাশ আরব দেশগুলোর

সুনামগঞ্জের দেখার হাওরে কৃষকদের নিয়ে ধান কাটলেন কৃষিমন্ত্রী

সুনামগঞ্জের দেখার হাওরে কৃষকদের নিয়ে ধান কাটলেন কৃষিমন্ত্রী

সিলেটের উপর দিয়ে বয়ে যেতে পারে ৬০ কি:মি বেগে বজ্র বৃষ্টি সহ দমকা হাওয়া !

সিলেটের উপর দিয়ে বয়ে যেতে পারে ৬০ কি:মি বেগে বজ্র বৃষ্টি সহ দমকা হাওয়া !

আনোয়ারায় হিট স্ট্রোকে শাহজাদা ছালেহ আহমদ (৭৪) শাহর মৃত্যু

আনোয়ারায় হিট স্ট্রোকে শাহজাদা ছালেহ আহমদ (৭৪) শাহর মৃত্যু

দুবাই পানিতে তলিয়ে যাবার কারণ ক্লাউড সিডিং?

দুবাই পানিতে তলিয়ে যাবার কারণ ক্লাউড সিডিং?

জার্মানির প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ জেলেনস্কির

জার্মানির প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ জেলেনস্কির

নেতানিয়াহুকে গ্রেপ্তারি করার প্রস্তুতি নিচ্ছে আইসিসি, জরুরি বৈঠক তলব

নেতানিয়াহুকে গ্রেপ্তারি করার প্রস্তুতি নিচ্ছে আইসিসি, জরুরি বৈঠক তলব

বান্দরবানে অপহৃত সেই ব্যাংক ম্যানাজার কে চট্টগ্রামে বদলী

বান্দরবানে অপহৃত সেই ব্যাংক ম্যানাজার কে চট্টগ্রামে বদলী

মূল্যস্ফীতিই অর্থনীতিতে বড় সমস্যা

মূল্যস্ফীতিই অর্থনীতিতে বড় সমস্যা

খাদের কিনারে মধ্যপ্রাচ্য

খাদের কিনারে মধ্যপ্রাচ্য

সেনাপ্রধান এসএম শফিউদ্দিন আহমেদের প্রশংসনীয় বক্তব্য

সেনাপ্রধান এসএম শফিউদ্দিন আহমেদের প্রশংসনীয় বক্তব্য

রাঙ্গুনিয়ায় বলি খেলায় বিজয়ী রুবেল

রাঙ্গুনিয়ায় বলি খেলায় বিজয়ী রুবেল