বিষন্নতা কাটিয়ে অবশেষে অভিনয়ে ফিরছেন অভিনেত্রী নেহা আমানদীপ

Daily Inqilab বিনোদন রিপোর্ট:

৩০ জুলাই ২০২৩, ০৯:৩৭ পিএম | আপডেট: ৩১ জুলাই ২০২৩, ১২:২২ এএম

বাংলা টেলিভিশনের অন্যতম সুন্দরী অভিনেত্রী নেহা আমানদীপ। পাঞ্জাবি হয়েও নিজের সৌন্দর্য এবং অভিনয়ের মাধ্যমে বাংলা ইন্ডাস্ট্রিতে বেশ রাজত্ব কায়েম করেছিলেন অভিনেত্রী। কিন্তু টেলিভিশনের পর্দা থেকে গত ৩ বছর ধরে গায়েব। সোশ্যাল মিডিয়াতেও নেই। জি বাংলা’র ‘স্ত্রী’ ধারাবাহিক দিয়েই বাংলা টেলিভিশনে আত্মপ্রকাশ তাঁর। এরপর সান বাংলার ‘কনে বউ’ সিরিয়ালে শেষ দেখা গিয়েছিল নেহাকে। শোনা যাচ্ছে, প্রায় ৩ বছর অবসাদ কাটিয়ে অবশেষে কামব্যাক করতে চলেছেন নেহা। মাস দুয়েক আগেই জানা গিয়েছিল জি বাংলায় ব্লুজ প্রোডাকশনের আসন্ন সিরিয়ালে থাকছেন তিনি। কিন্তু সেই প্রজেক্টের কাজ আটকে যাওয়ায় আপাতত স্টার জলসার আসন্ন মেগায় নায়িকা হয়ে ফিরছেন নেহা আমানদীপ। স্বাভাবিকভাবেই অভিনেত্রীকে টেলিপর্দায় দেখতে মুখিয়ে রয়েছেন ভক্তরা। এই ব্যাপারে নেহার কী বললেন? এখুনি কোনও মন্তব্য করবেন না বলে জানিয়েছেন অভিনেত্রী। তবে খুব শীঘ্রই টেলিভিশনের পর্দায় ফিরবেন বলে নিশ্চিত করেছেন অভিনেত্রী। সূত্রের খবর, স্টার জলসায় স্নেহাশিস চক্রবর্তীর ব্লুজের আসন্ন মেগাতেই থাকবে নেহা। এই সিরিয়ালে নেহার বিপরীতে থাকবেন রোহন ভট্টাচার্য। গত বছরের শেষে দিদি নম্বর ১-এর মঞ্চে এসে অভিনয় থেকে সরে দাঁড়ানোর বিষয়ে অভিনেত্রী জানিয়েছিলেন, ‘ছোট ছিলাম আমি। কিছু কথা শুনে আমি ইন্ডাস্ট্রি ছেড়ে দিলাম। কেন ছাড়লাম সেটা নিজেও ঠিকভাবে ব্যাখ্যা করতে পারব না। আমার মনে হত আমার মাথার মধ্যে কোনও তৃতীয় ব্যক্তি কথা বলছে। সে বলত, তুমি এই পৃথিবীর সবচেয়ে খারাপ মানুষ। তোমাকে বিচ্ছিরি দেখতে, তোমাকে কেউ আপন করে নেবে না। তোমার মরে যাওয়া উচিতৃ আমার এই সব মনে হত। আমি ভয় পেতাম লোকজনের সঙ্গে কথা বলতে। আমি রুমের বাইরে বার হতে পারতাম না। কাজের ব্যাপারে কেউ ফোন করলে ফোন ধরতাম না.. ডিপ্রেশন শব্দটা সেই বুঝতে পারে যে সেটার মধ্যে দিয়ে যায়। মানে তুমি নিঃশ্বাস নিচ্ছ, কিন্তু তুমি বেঁচে নেই’।


বিভাগ : বিনোদন


মন্তব্য করুন

HTML Comment Box is loading comments...

আরও পড়ুন

ইসরাইলের গণহত্যা তদন্তে সহযোগিতা করছেন আমাল ক্লুনি

ইসরাইলের গণহত্যা তদন্তে সহযোগিতা করছেন আমাল ক্লুনি

জয়ে আশাবাদি আশরাফ, রয়েছে ফলাফল ছিনিয়ে নেওয়ার শঙ্কা

জয়ে আশাবাদি আশরাফ, রয়েছে ফলাফল ছিনিয়ে নেওয়ার শঙ্কা

পশ্চিমাদের নিরাপত্তা গ্যারান্টির প্রতি আফ্রিকার দেশগুলোর কেন আস্থা নেই?

পশ্চিমাদের নিরাপত্তা গ্যারান্টির প্রতি আফ্রিকার দেশগুলোর কেন আস্থা নেই?

রইসির হেলিকপ্টার বিধ্বস্তের পর যুক্তরাষ্ট্রের সহায়তা চেয়েও পায়নি ইরান

রইসির হেলিকপ্টার বিধ্বস্তের পর যুক্তরাষ্ট্রের সহায়তা চেয়েও পায়নি ইরান

অবসরের পর চুরির দায়ের কাঠগড়ায় টেনিস তারকা

অবসরের পর চুরির দায়ের কাঠগড়ায় টেনিস তারকা

বেঙ্গালুরুতে রাতভর উদ্দাম পার্টি, মাদকের নেশায় উল্লাস বিধায়ক-নায়িকাদের!

বেঙ্গালুরুতে রাতভর উদ্দাম পার্টি, মাদকের নেশায় উল্লাস বিধায়ক-নায়িকাদের!

বাগেরহাটে আওয়ামী লীগ নেতাকে ছয় মাসের কারাদণ্ড

বাগেরহাটে আওয়ামী লীগ নেতাকে ছয় মাসের কারাদণ্ড

ভোটকেন্দ্রের মাঠে কুকুর, ৩ ঘণ্টায় ভোট পড়েছে মাত্র ১৯টি

ভোটকেন্দ্রের মাঠে কুকুর, ৩ ঘণ্টায় ভোট পড়েছে মাত্র ১৯টি

ইরানের সর্বোচ্চ নেতাকে চিঠি লিখেছেন পুতিন

ইরানের সর্বোচ্চ নেতাকে চিঠি লিখেছেন পুতিন

ইরানি জনগণের মাঝে রাইসি কেন জনপ্রিয় ছিলেন?

ইরানি জনগণের মাঝে রাইসি কেন জনপ্রিয় ছিলেন?

১১ সপ্তাহ বন্ধ থাকার পর খুললো হাইতির বিমানবন্দর

১১ সপ্তাহ বন্ধ থাকার পর খুললো হাইতির বিমানবন্দর

শিল্পীদের ভোটকে অসম্মান করবেন না, ডিপজলের উদ্দেশে রত্না

শিল্পীদের ভোটকে অসম্মান করবেন না, ডিপজলের উদ্দেশে রত্না

ঢাকায় পৌঁছেছেন অস্ট্রেলিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী

ঢাকায় পৌঁছেছেন অস্ট্রেলিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী

রাইসির মৃত্যুর পর এখন ইরানের ভবিষ্যৎ কী?

রাইসির মৃত্যুর পর এখন ইরানের ভবিষ্যৎ কী?

শত্রুরাই আমার আত্মবিশ্বাস বাড়িয়েছে: পরীমণি

শত্রুরাই আমার আত্মবিশ্বাস বাড়িয়েছে: পরীমণি

ভারতে সাজাভোগ শেষে দেশে ফিরলেন ৮ বাংলাদেশি নারী

ভারতে সাজাভোগ শেষে দেশে ফিরলেন ৮ বাংলাদেশি নারী

কান থেকে ফিরেই হাসপাতালে ঐশ্বরিয়া

কান থেকে ফিরেই হাসপাতালে ঐশ্বরিয়া

অপু বিশ্বাসের জিডি, তিনজনকে সতর্ক করলো পুলিশ

অপু বিশ্বাসের জিডি, তিনজনকে সতর্ক করলো পুলিশ

গণসংহতির বিক্ষোভ ঘিরে বাংলাদেশ ব্যাংকের সামনে নিরাপত্তা জোরদার

গণসংহতির বিক্ষোভ ঘিরে বাংলাদেশ ব্যাংকের সামনে নিরাপত্তা জোরদার

নাইজেরিয়ার মৃৎশিল্পে চিরায়ত ঐতিহ্য

নাইজেরিয়ার মৃৎশিল্পে চিরায়ত ঐতিহ্য