ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদের স্মরণ সভা অনুষ্ঠিত

Daily Inqilab ইনকিলাব ডেস্ক

১৬ মার্চ ২০২৩, ০৫:৫৬ পিএম | আপডেট: ৩০ এপ্রিল ২০২৩, ১০:৩৭ পিএম

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য প্রয়াত ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদের দ্বিতীয় মৃত্যু বার্ষিকী উপলক্ষে স্মরণ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে । বৃহস্পতিবার (১৬ মার্চ) দুপুর ১টার দিকে উপজেলার সিরাজপুর ইউনিয়নের মোহাম্মদ নগর গ্রামে এ স্মরণ সভার আয়োজন করা হয়। স্মরণ সভায় ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদের সহধর্মিণী সাবেক সংসদ সদস্য হাসনা জসীম উদদীন মওদুদের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন,বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী ড.আব্দুল মইন খান।

স্মরণ সভায় রাজনীতির ইতিহাসে মওদুদ আহমদ চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবেন বলে মন্তব্য করেছেন, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী ড.আব্দুল মইন খান। তিনি বলেন, আমি দূরের মানুষ হয়েও মওদুদ সাহেবকে খুব কাছ থেকে দেখার সুযোগ পেয়েছি। তিনি ৫২ এর ভাষা সৈনিক ছিলেন। তিনি ভাষা সৈনিক তাই নয়। তিনি তৎকালীণ সরকার বিরোধী আন্দোলনে জড়িত হওয়ার কারণে তাকে স্কুল থেকে মেট্রিক পরীক্ষা দিতে দেওয়া হয় নাই। পরবর্তীতে তিনি পার্শ্ববর্তী একটি স্কুলে নতুন করে ভর্তি হয়ে পরীক্ষা দিয়ে ছিলেন। একজন মানুষের জীবনে সব চেয়ে গুরুত্বপূর্ণ পরীক্ষা প্রবেশিকা পরীক্ষা। তিনি দেশের প্রেমে,ভাষার প্রেমে,সেই মায়া পর্যন্ত ত্যাগ করেছিলেন।

মইন খান বলেন, মওদুদ আহমেদ বাংলাদেশের উন্নয়নের রুপকার ছিলেন। তার সম্পর্কে সারা রাত বলেও শেষ করা যাবেনা। তিনি চিরতরুণ ছিলেন সর্বক্ষেত্রে। স্বাধীনতা যুদ্ধের আগে থেকে, স্বাধীনতা যুদ্ধের সময়, স্বাধীনতা যুদ্ধ পরবর্তী সময়, প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের সময়, তার পরবর্তী ৮০ দশকে,তৎপরবর্তী ৯০ দশকে এবং সর্বশেষ তার মৃত্যুর আগে পর্যন্ত বাংলাদেশের যারা নিয়ন্ত্রক ছিলেন, বাংলাদেশের নীতি নির্ধারণ যারা করেছেন, বাংলাদেশের ভাগ্য যারা নির্ধারণ করেছিলেন, তিনি কিন্ত সেখানে পুরো সময় একটি ভূমিকা পালন করেছেন দলমত নির্বিশেষে। এটা কিন্তু তার জীবনের বর্ণিল একটি সুযোগ।

এ সময় বক্তরা প্রয়াত এই নেতার বর্ণাঢ্য রাজনৈতিক জীবন তুলে ধরে তার স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করে বক্তব্য দেন। বক্তরা বলেন,আইনজীবী হিসেবে, রাজনীতিবিদ হিসেবে এবং সর্বোপরি একজন লেখক এবং গবেষক হিসেবে তিনি চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবেন। জীবিত থাকবেন তার নির্বাচনী এলাকার মানুষের কাছে, দেশের মানুষের মাঝে। আমাদের রাজনীতির ইতিহাসে, সংগ্রামে আন্দোলনের ইতিহাসে।

স্মরণ সভায় আরো বক্তব্য রাখেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও সাবেক বিরোধী দলীয় চিফ হুইপ জয়নুল আবেদিন ফারুক, চট্রগ্রাম মহানগর স্বেচ্ছাসেবকদলের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসেন এরশাদ, জেলা বিএনপির সদস্য মো.গোলাম মোহিত ফয়সাল, কবিরহাট উপজেলা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি নাজমুল হুদা ফরহাদ, কবিরহাট পৌরসভা বিএনপির সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান মঞ্জু প্রমূখ। আলোচনা সভা শেষে দোয়ার অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন, মাওলানা কেয়ায়েত উল্যাহ। উল্লেখ্য, ২০২১ সালের ১৬ মার্চ সিঙ্গাপুরে মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ।


বিভাগ : জাতীয়


মন্তব্য করুন

HTML Comment Box is loading comments...

আরও পড়ুন

সম্ভাব্য শেষ ফরাসি ওপেনে প্রথম রাউন্ডেই বিদায় নাদালের

সম্ভাব্য শেষ ফরাসি ওপেনে প্রথম রাউন্ডেই বিদায় নাদালের

বাংলাদেশে কুরুলুস উসমান অভিনেতা ওসমান বে'কে নিয়ে ভক্তদের মাঝে উন্মাদনা

বাংলাদেশে কুরুলুস উসমান অভিনেতা ওসমান বে'কে নিয়ে ভক্তদের মাঝে উন্মাদনা

'অনাকাঙ্ক্ষিত দুর্ঘটনা' আখ্যা দিলেও আগ্রাসন চালিয়ে যাওয়ার অঙ্গীকার নেতানিয়াহুর

'অনাকাঙ্ক্ষিত দুর্ঘটনা' আখ্যা দিলেও আগ্রাসন চালিয়ে যাওয়ার অঙ্গীকার নেতানিয়াহুর

ইউরোর প্রাথমিক দল ঘোষণা স্পেনের,নতুন মুখ ফেরমিন লোপেজ

ইউরোর প্রাথমিক দল ঘোষণা স্পেনের,নতুন মুখ ফেরমিন লোপেজ

দেড় লাখ ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত

দেড় লাখ ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত

পানিবন্দি লাখো মানুষ

পানিবন্দি লাখো মানুষ

দুনিয়ার ধন-সম্পদ মানুষের জন্য পরীক্ষা

দুনিয়ার ধন-সম্পদ মানুষের জন্য পরীক্ষা

ভারত একনায়কতন্ত্রের দিকে যাচ্ছে, পুতিন ও শেখ হাসিনা যা করেছেন মোদি তাই করতে চাইছেন -অরবিন্দ কেজরিওয়াল

ভারত একনায়কতন্ত্রের দিকে যাচ্ছে, পুতিন ও শেখ হাসিনা যা করেছেন মোদি তাই করতে চাইছেন -অরবিন্দ কেজরিওয়াল

ফিচ রেটিংসে ফের বাংলাদেশের ঋণমান অবনমন

ফিচ রেটিংসে ফের বাংলাদেশের ঋণমান অবনমন

এডিপি বাস্তবায়ন অর্ধেকেরও কম

এডিপি বাস্তবায়ন অর্ধেকেরও কম

নিজের বুক পেতে উপকূলকে এবারও রক্ষা করল সুন্দরবন

নিজের বুক পেতে উপকূলকে এবারও রক্ষা করল সুন্দরবন

পৌনে তিন কোটি গ্রাহক বিদ্যুৎবিচ্ছিন্ন

পৌনে তিন কোটি গ্রাহক বিদ্যুৎবিচ্ছিন্ন

কসাই জিহাদকে নিয়ে কলকাতার সেই ফ্ল্যাটে ঢাকা ডিবির তদন্ত দল

কসাই জিহাদকে নিয়ে কলকাতার সেই ফ্ল্যাটে ঢাকা ডিবির তদন্ত দল

একদিনে ৩ হাজার ৩৩৫ মি.মি. বৃষ্টিপাত রেকর্ড!

একদিনে ৩ হাজার ৩৩৫ মি.মি. বৃষ্টিপাত রেকর্ড!

রিমালের প্রভাবে আন্তর্জাতিক রুটের ১০ ফ্লাইট বাতিল

রিমালের প্রভাবে আন্তর্জাতিক রুটের ১০ ফ্লাইট বাতিল

১১১ উপজেলায় কোটিপতি ১০৬ প্রার্থী

১১১ উপজেলায় কোটিপতি ১০৬ প্রার্থী

নিষেধাজ্ঞা উঠছে, সউদীর কাছে প্রাণঘাতী অস্ত্র বিক্রি করবে যুক্তরাষ্ট্র

নিষেধাজ্ঞা উঠছে, সউদীর কাছে প্রাণঘাতী অস্ত্র বিক্রি করবে যুক্তরাষ্ট্র

রাখাইনে নির্বিচারে মুসলিম নিধন ও শিরোñেদ চালাচ্ছে আর্মি

রাখাইনে নির্বিচারে মুসলিম নিধন ও শিরোñেদ চালাচ্ছে আর্মি

শরণার্থী শিবিরে ইসরাইলি হামলায় জীবন্ত পুড়ে মরল অসহায় ফিলিস্তিনিরা

শরণার্থী শিবিরে ইসরাইলি হামলায় জীবন্ত পুড়ে মরল অসহায় ফিলিস্তিনিরা

একদিনে ১৩ জনের করোনা শনাক্ত

একদিনে ১৩ জনের করোনা শনাক্ত