ঘটনার ৯ বছর পর নাটোরে কলেজছাত্রীকে অপহরণ-ধর্ষণ মামলায় চারজনের যাবজ্জীবন কারাদন্ডাদেশ

Daily Inqilab নাটোর জেলা সংবাদদাতা

১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১২:০৪ এএম | আপডেট: ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১২:০৪ এএম

নাটোরের গুরুদাসপুরে এক কলেজছাত্রীকে অপহরণ ও ধর্ষণ ঘটনার ৯ বছর পর ঐ মামলার চারজন আসামীকে যাবজ্জীবন কারাদ-াদেশ দিয়েছেন আদালত। একই সঙ্গে প্রত্যেককে ২০ হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়েছে। রায়ে ভিকটিমকে জরিমানার টাকা দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়। সোমবার দুপুরে নাটোর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক (জেলা ও দায়রা জজ) মুহাম্মদ আব্দুর রহিম এ আদেশ দেন। এসময় আসামিরা আদালতে উপস্থিত ছিলেন।
দ-প্রাপ্ত আসামীরা হলেন- জেলার গুরুদাসপুর উপজেলার নারায়ণপুর গ্রামের মো. তোফাজ্জল হোসেনের ছেলে মো. আতিক হাসান (৩২), একই গ্রামের আশরাফ হোসেন মাস্টারের ছেলে মো. সুমন আলী (৩২) মো. সুলতান (৪২) এবং আব্দুস সাত্তারের ছেলে মো. আবু জাফর (৩৫)। নাটোর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের স্পেশাল পাবলিক প্রসিকিউটর (বিশেষ পিপি) অ্যাডভোকেট আনিছুর রহমান এতথ্য নিশ্চিত করেছেন।
তিনি জানান, ২০১৪ সালের ১০ আগস্ট সকালে নিজ বাড়ি থেকে হেঁটে উত্তরনারী বাড়ি এলাকায় প্রাইভেট মাস্টারের বাড়িতে পড়তে যায় ওই কলেজছাত্রী। এসময় সড়কের পাশে আতিক, সুমন, টিপু সুলতান ও আবু জাফর ওই ছাত্রীকে অপহরণ করে সাদা মাইক্রোবাসে উঠিয়ে নিয়ে যায়। একপর্যায়ে ওই ছাত্রীকে আটকে রেখে ধর্ষণ করে আতিক।
এদিকে ওই ছাত্রীকে বিভিন্ন জায়গায় খোঁজাখুঁজি করেও ব্যর্থ হয় তার পরিবার। পরে অপহৃতের চাচা আমিরুল ইসলাম বাদী হয়ে চারজনের নামে গুরুদাসপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। পরে ঘটনার ১০দিন পরে ২০ আগস্ট নাটোর জেলা ও দায়রা জজ কোর্ট চত্বর থেকে পুলিশ অপহৃত কলেজছাত্রীকে উদ্ধার করে। পরে জেলা গোয়েন্দা পুলিশের উপপরিদর্শক সুব্রত কুমার মাহাতো একই বছরের ৯ নভেম্বর আসামিদের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র জমা দেন।
পরবর্তীতে মামলাটি নাটোরের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে বিচারের জন্য আসলে মামলা দায়েরের ৯ বছর পর আদালত স্বাক্ষ্য প্রমাণ ও শুনানি শেষে দুপুরে আসামি আতিক হাসানকে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনের ৯(১) ধারায় যাবজ্জীবন ও ২০ হাজার টাকা জরিমানা এবং অপর ধারা ৭ এ যাবজ্জীবনসহ ২০ হাজার টাকা জরিমানার আদেশ দেন। অর্থাৎ মামলায় দুইটি ধারায় আতিককে ৬০ বছর কারাদ- ও ৪০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।
অপর তিন আসামি সুমন আলী, টিপু সুলতান ও আবু জাফরকে যাবজ্জীবন (৩০ বছর) ও প্রত্যেককে ২০ হাজার টাকা জরিমানার আদেশ দেন। জরিমানার সমুদয় টাকা অপহৃত ওই ছাত্রীকে দেওয়ার নির্দেশ দেন আদালত।
স্পেশাল পাবলিক প্রসিকিউটর (বিশেষ পিপি) অ্যাডভোকেট আনিছুর রহমান আরও জানান, বিচার চলাকালে আসামিরা জামিনে মুক্ত থাকলেও গতকাল ১১ ফেব্রুয়ারি রোববার তাদের জামিন বাতিল করে কারাগারে পাঠায় আদালত। রায়ের পর আসামিদের নাটোর জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে। রায়ে বাদীপক্ষ সন্তোষ প্রকাশ করেছেন। তবে আসামি পক্ষের আইনজীবী শরিফুল হক রায়ের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতে আপিল করবেন বলে জানিয়েছেন।

 


বিভাগ : বাংলাদেশ


মন্তব্য করুন

HTML Comment Box is loading comments...

এই বিভাগের আরও

কুসিক উপনির্বাচন : সংখ্যালঘু নতুন ও দক্ষিনের ভোটার জয়-পরাজয়ে ফ্যাক্টর
সিরাজগঞ্জে ‘শিক্ষকের গুলিতে’ মেডিক্যাল কলেজ শিক্ষার্থী আহত
কুমিল্লায় দুগ্ধপোষ্য শিশু চুরির অপরাধে এক নারীর দশ বছরের কারাদণ্ড
মুসলিম উম্মাহর ঐক্য, শান্তি ও সমৃদ্ধি এবং দেশের শান্তি- শৃঙ্খলা রক্ষায় আল্লাহর রহমত কামনা করে মোকামিয়ার দুই দিনব্যাপী মাহফিল সম্পন্ন
ঝুঁকিপূর্ণ কেন্দ্রে ১৭, সাধারণ কেন্দ্রে থাকবে ১৬ জনের ফোর্স
আরও

আরও পড়ুন

১ লাখ টন চিনি পুড়ে ছাই, এখনো জ্বলছে আগুন

১ লাখ টন চিনি পুড়ে ছাই, এখনো জ্বলছে আগুন

রুশ ও মার্কিন নভোচারী নিয়ে স্পেসএক্স এর যাত্রা

রুশ ও মার্কিন নভোচারী নিয়ে স্পেসএক্স এর যাত্রা

লাক্ষাদ্বীপে কেন দ্বিতীয় সামরিক নৌঘাঁটি তৈরি করছে ভারত?

লাক্ষাদ্বীপে কেন দ্বিতীয় সামরিক নৌঘাঁটি তৈরি করছে ভারত?

কুসিক উপনির্বাচন : সংখ্যালঘু নতুন ও দক্ষিনের ভোটার জয়-পরাজয়ে ফ্যাক্টর

কুসিক উপনির্বাচন : সংখ্যালঘু নতুন ও দক্ষিনের ভোটার জয়-পরাজয়ে ফ্যাক্টর

সিরাজগঞ্জে ‘শিক্ষকের গুলিতে’ মেডিক্যাল কলেজ শিক্ষার্থী আহত

সিরাজগঞ্জে ‘শিক্ষকের গুলিতে’ মেডিক্যাল কলেজ শিক্ষার্থী আহত

বাংলাদেশকে কঠিন লক্ষ্য দিল শ্রীলঙ্কা

বাংলাদেশকে কঠিন লক্ষ্য দিল শ্রীলঙ্কা

সুগার মিলের আগুন নিয়ন্ত্রণে নৌবাহিনী

সুগার মিলের আগুন নিয়ন্ত্রণে নৌবাহিনী

টেকসই ভবিষ্যতের লক্ষ্যে পরিবেশবান্ধব জ্বালানিতে গুরুত্ব দিচ্ছে গ্রামীণফোন

টেকসই ভবিষ্যতের লক্ষ্যে পরিবেশবান্ধব জ্বালানিতে গুরুত্ব দিচ্ছে গ্রামীণফোন

মধ্যপ্রাচ্যের অন্যতম গন্তব্য আবুধাবীতে ফ্লাইট শুরু করতে যাচ্ছে ইউএস-বাংলা

মধ্যপ্রাচ্যের অন্যতম গন্তব্য আবুধাবীতে ফ্লাইট শুরু করতে যাচ্ছে ইউএস-বাংলা

ওয়ারীর ১৪ রেস্টুরেন্টে অভিযান, আটক ১৬

ওয়ারীর ১৪ রেস্টুরেন্টে অভিযান, আটক ১৬

শিক্ষার্থীদের সঠিক মূল্যায়নের জন্য প্রয়োজন দক্ষ শিক্ষকঃ গবেষণা

শিক্ষার্থীদের সঠিক মূল্যায়নের জন্য প্রয়োজন দক্ষ শিক্ষকঃ গবেষণা

দূষণজনিত রোগ প্রতিরোধে জাতীয় অভিযোজন পরিকল্পনায় স্বাস্থ্য বিষয়টি অন্তর্ভুক্ত করা হবে : পরিবেশমন্ত্রী

দূষণজনিত রোগ প্রতিরোধে জাতীয় অভিযোজন পরিকল্পনায় স্বাস্থ্য বিষয়টি অন্তর্ভুক্ত করা হবে : পরিবেশমন্ত্রী

কুমিল্লায় দুগ্ধপোষ্য শিশু চুরির অপরাধে এক নারীর দশ বছরের কারাদণ্ড

কুমিল্লায় দুগ্ধপোষ্য শিশু চুরির অপরাধে এক নারীর দশ বছরের কারাদণ্ড

ভি সিরিজের নতুন স্মার্টফোন এনেছে ভিভো

ভি সিরিজের নতুন স্মার্টফোন এনেছে ভিভো

অ্যাপলকে ১৮০ কোটি ইউরো জরিমানা করেছে ইইউ

অ্যাপলকে ১৮০ কোটি ইউরো জরিমানা করেছে ইইউ

গ্রুমিং সচেতনতার জন্য বিয়ার্ডো ও লিভনের স্পেশাল এডিশন ‘স্টাইলিং সল্যুশন’

গ্রুমিং সচেতনতার জন্য বিয়ার্ডো ও লিভনের স্পেশাল এডিশন ‘স্টাইলিং সল্যুশন’

মুসলিম উম্মাহর ঐক্য, শান্তি ও সমৃদ্ধি এবং দেশের শান্তি- শৃঙ্খলা রক্ষায় আল্লাহর রহমত কামনা করে মোকামিয়ার দুই দিনব্যাপী মাহফিল সম্পন্ন

মুসলিম উম্মাহর ঐক্য, শান্তি ও সমৃদ্ধি এবং দেশের শান্তি- শৃঙ্খলা রক্ষায় আল্লাহর রহমত কামনা করে মোকামিয়ার দুই দিনব্যাপী মাহফিল সম্পন্ন

ঝুঁকিপূর্ণ কেন্দ্রে ১৭, সাধারণ কেন্দ্রে থাকবে ১৬ জনের ফোর্স

ঝুঁকিপূর্ণ কেন্দ্রে ১৭, সাধারণ কেন্দ্রে থাকবে ১৬ জনের ফোর্স

হিলি সীমান্ত পরিদর্শনে সেনা, নৌ ও বিমান বাহিনীর প্রতিনিধি দল

হিলি সীমান্ত পরিদর্শনে সেনা, নৌ ও বিমান বাহিনীর প্রতিনিধি দল

আড়াই ঘণ্টায়ও নিয়ন্ত্রণে আসেনি চিনি মিলের আগুন

আড়াই ঘণ্টায়ও নিয়ন্ত্রণে আসেনি চিনি মিলের আগুন