দেশে সর্বগ্রাসী অরাজকতা চলছে : মির্জা ফখরুল

Daily Inqilab স্টাফ রিপোর্টার

১৬ মার্চ ২০২৪, ১২:১১ এএম | আপডেট: ১৬ মার্চ ২০২৪, ১২:১১ এএম

দেশে আইনের শাসন ও সুশাসন নেই বলেই গণতান্ত্রিক সংগ্রামে অংশগ্রহণরত নেতাকর্মীরা ন্যায়বিচার থেকে বঞ্চিত হচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। গতকাল শুক্রবার এক বিবৃতিতে এ মন্তব্য করেন তিনি।

‘বৃহস্পতিবার মিথ্যা, বানোয়াট ও রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত মামলায় আদালত কতৃর্ক ঢাকা জেলা বিএনপির সাবেক সহ-সভাপতি মো. কফিল উদ্দিনের জামিন নামঞ্জুর এবং কারাগারে পাঠানোর ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করে’ বিবৃতিতে মির্জা ফখরুল বলেন, বর্তমানে দেশে আইনের শাসন ও সুশাসন নেই বলেই গণতান্ত্রিক সংগ্রামে অংশগ্রহণরত নেতাকর্মীরা ন্যায়বিচার থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন। দেশে এক সর্বগ্রাসী অরাজকতা বিদ্যমান রয়েছে। দুঃশাসন প্রলম্বিত করার জন্যই শহর থেকে গ্রাম সর্বত্র ভীতি ও আতঙ্ক ছড়িয়ে দেয়া হচ্ছে। আর ৭ জানুয়ারি ‘ডামি’ নির্বাচনের মাধ্যমে ক্ষমতা দখল করে আওয়ামী শাসকগোষ্ঠী এখন আরও বেশি মাত্রায় বেপরোয়া ও কর্তৃত্ববাদী হয়ে উঠেছে।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, অবৈধ রাষ্ট্র ক্ষমতা টিকিয়ে রাখার জন্য বিএনপি এবং এর অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনসহ গণতন্ত্রমনা বিরোধী দল এবং ভিন্ন মত ও পথের মানুষদের ওপর নানান কায়দায় দমন-পীড়ন চালিয়ে যাচ্ছে দখলদার সরকার। মিথ্যা ও বানোয়াট মামলায় জামিন নামঞ্জুর করে বিরোধী নেতাকর্মীদের কারাগারে পাঠানোর মাধ্যমে গোটা দেশটাকে এক জুলুমের নগরীতে পরিণত করা হয়েছে। কফিল উদ্দিনের জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর ঘটনা আওয়ামী জুলুমের আরেকটি বহিঃপ্রকাশ। তিনি আরো বলেন, সারাদেশে প্রতিনিয়ত সরকারের মদদে বিরোধী নেতাকর্মীদের জামিন নামঞ্জুরের মাধ্যমে কারান্তরীণ করার ঘটনায় আমি গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করছি এবং অবিলম্বে কফিল উদ্দিনের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারসহ তার নিঃশর্ত মুক্তির জোর আহŸান জানাচ্ছি।


বিভাগ : জাতীয়


মন্তব্য করুন

HTML Comment Box is loading comments...

আরও পড়ুন

যুক্তরাষ্ট্রে পবিত্র ঈদুল আযহা উদযাপিত

যুক্তরাষ্ট্রে পবিত্র ঈদুল আযহা উদযাপিত

দুর্নীতিগ্রস্ত সেই মতিউরের ছেলের ৫২ লাখ টাকার কোরবানি!

দুর্নীতিগ্রস্ত সেই মতিউরের ছেলের ৫২ লাখ টাকার কোরবানি!

বাংলাদেশ সীমান্তবর্তী রাখাইন বাসিন্দাদের এলাকা ত্যাগের নির্দেশ

বাংলাদেশ সীমান্তবর্তী রাখাইন বাসিন্দাদের এলাকা ত্যাগের নির্দেশ

ঈদে বাবা-মাকে নিয়ে জায়েদ খানের আবেগঘন স্ট্যাটাস

ঈদে বাবা-মাকে নিয়ে জায়েদ খানের আবেগঘন স্ট্যাটাস

উত্তর কোরিয়ায় পুতিনের সফর ঘিরে দক্ষিণ কোরিয়ায় উদ্বেগ

উত্তর কোরিয়ায় পুতিনের সফর ঘিরে দক্ষিণ কোরিয়ায় উদ্বেগ

বঙ্গবন্ধু সেতুতে ৮ দিনে ২৪ কোটি ৫৩ লাখ টাকা টোল আদায়

বঙ্গবন্ধু সেতুতে ৮ দিনে ২৪ কোটি ৫৩ লাখ টাকা টোল আদায়

ভারতে চামড়া পাচাররোধে বেনাপোল সীমান্তে বিজিবির সতর্কতা জারি

ভারতে চামড়া পাচাররোধে বেনাপোল সীমান্তে বিজিবির সতর্কতা জারি

ইসরাইলি আগ্রাসনে নিশ্চিহ্ন ফিলিস্তিনের চার প্রজন্ম!

ইসরাইলি আগ্রাসনে নিশ্চিহ্ন ফিলিস্তিনের চার প্রজন্ম!

চীনে ভয়াবহ বন্যা, পানির তোড়ে সেতু ধস

চীনে ভয়াবহ বন্যা, পানির তোড়ে সেতু ধস

ঈদে ঘুরতে প্রাইভেট কারে ছিলেন ৫ বন্ধু, দুর্ঘটনায় প্রাণ হারায় ২

ঈদে ঘুরতে প্রাইভেট কারে ছিলেন ৫ বন্ধু, দুর্ঘটনায় প্রাণ হারায় ২

ঈদের দ্বিতীয় দিনে পর্যটকদের পদচারনায় মুখরিত কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকত

ঈদের দ্বিতীয় দিনে পর্যটকদের পদচারনায় মুখরিত কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকত

এশিয়ার বিভিন্ন দেশে ঈদুল আজহা উদযাপন

এশিয়ার বিভিন্ন দেশে ঈদুল আজহা উদযাপন

ঈদের শুভেচ্ছা বার্তায় গাজায় যুদ্ধবিরতি বিষয়ে যা বললেন বাইডেন

ঈদের শুভেচ্ছা বার্তায় গাজায় যুদ্ধবিরতি বিষয়ে যা বললেন বাইডেন

“মুসলিমরা ভোট দেয়নি, ওদের সাহায্য নয়” নীতীশের সাংসদের কথায় তপ্ত বিহার

“মুসলিমরা ভোট দেয়নি, ওদের সাহায্য নয়” নীতীশের সাংসদের কথায় তপ্ত বিহার

ঈদের রাতে মহিষের তাণ্ডবে বৃদ্ধের মৃত্যু, আহত ১

ঈদের রাতে মহিষের তাণ্ডবে বৃদ্ধের মৃত্যু, আহত ১

সিলেট ও সুনামগঞ্জে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি, পানিবন্দি লক্ষাধিক মানুষ

সিলেট ও সুনামগঞ্জে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি, পানিবন্দি লক্ষাধিক মানুষ

সুপার এইটে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ ও সূচি

সুপার এইটে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ ও সূচি

বগুড়ায় ঈদের রাতে জোড়া খুন

বগুড়ায় ঈদের রাতে জোড়া খুন

ঈদের দিনে চিলমারী নৌ বন্দরে পর্যটকদের ভিড়

ঈদের দিনে চিলমারী নৌ বন্দরে পর্যটকদের ভিড়

রাহুল রাখছেন রায়বেরেলি, ছেড়ে দেয়া আসনে লড়বেন প্রিয়াঙ্কা

রাহুল রাখছেন রায়বেরেলি, ছেড়ে দেয়া আসনে লড়বেন প্রিয়াঙ্কা