কুমিল্লা নগরীতে দুই গ্রুপের সংঘর্ষে ছাত্রদল কর্মী নিহত

Daily Inqilab স্টাফ রিপোর্টার, কুমিল্লা থেকে

১৬ মার্চ ২০২৪, ১২:১৫ এএম | আপডেট: ১৬ মার্চ ২০২৪, ১২:১৫ এএম

স্বল্প দূরত্বে চলাচলকারী যানবাহন লেগুনার স্ট্যান্ড ঘিরে আধিপত্যকে কেন্দ্র করে দুই গ্রæপের সংঘর্ষে জামিল হাসান অর্ণব নামে এক ছাত্রদল কর্মী নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় আরো ৪ জন গুলিবিদ্ধ হয়েছে। গতকাল শুক্রবার দুপুরে নগরীর শাসনগাছা বাস টার্মিনালে প্রতিপক্ষের গুলিতে নিহত হন অর্ণব। সে শাসনগাছা মধ্যমপাড়ার আজহার মিয়া ছেলে। সে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া কলেজের ডিগ্রিতে পড়তো এবং ছাত্রদলের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত ছিল। পড়ালেখার পাশাপাশি নিজ এলাকা শাসনগাছা বাস টার্মিনালে সততা পরিবহনের ম্যানেজার হিসেবে খÐকালীন পেশায় নিয়োজিত ছিলেন।
এদিকে দুই গ্রæপের গোলাগুলির ঘটনায় একই এলাকার নিশাদ, নাজমুল, অনিক ও মোহন নামে আরো চারজন গুলিবিদ্ধ রয়েছে। অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাদের আশঙ্ককাজনক অবস্থায় ঢাকায় নেওয়া হয়েছে। এরমধ্যে নিশাদ মুমূর্ষু অবস্থায় রয়েছে।
স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গতকাল শুক্রবার জুমার নামাজের পর শাসনগাছা বাস টার্মিনালে সততা পরিবহনের কাউন্টারে কর্মরত অবস্থায় অর্ণবকে একই এলাকার ছাত্রলীগ নেতা রাব্বি ও আল্লাউদ্দিন এসে প্রকাশ্যে গুলি করতে থাকে। পরে ঘটনা জানতে পেরে একই এলাকার দুই গ্রæপের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। পরে স্থানীয়রা অর্ণবসহ আহত সবাইকে রক্তাক্ত অবস্থায় কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে অর্ণব মারা যায়।
কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা ছাত্রদলের সভাপতি ফরিদ উদ্দিন শিবলু বলেন, অর্ণব আমাদের কর্মী। এবারে কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা ছাত্রদলের প্রস্তাবিত কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক হিসেবে তার নাম বিবেচনায় রাখা হয়। কোতয়ালী মডেল থানার ওসি ফিরোজ হোসেন বলেন, পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। তদন্ত ছাড়া গোলাগুলির বিস্তারিত জানানো যাচ্ছে না।


বিভাগ : জাতীয়


মন্তব্য করুন

HTML Comment Box is loading comments...

আরও পড়ুন

যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে ৫০ বছরের চুক্তি বাতিল করল সৌদি আরব

যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে ৫০ বছরের চুক্তি বাতিল করল সৌদি আরব

মিশিগানে শিশুদের ওয়াটার পার্কে অতর্কিত হামলা, ২৮ বার গুলি! জখম একাধিক

মিশিগানে শিশুদের ওয়াটার পার্কে অতর্কিত হামলা, ২৮ বার গুলি! জখম একাধিক

দুই দশকেরও বেশি সময় পর কাল উত্তর কোরিয়া যাচ্ছেন রুশ প্রেসিডেন্ট

দুই দশকেরও বেশি সময় পর কাল উত্তর কোরিয়া যাচ্ছেন রুশ প্রেসিডেন্ট

অতীত তিক্ততা ভুলে মুইজ্জুকে মোদির ঈদ অভিনন্দন

অতীত তিক্ততা ভুলে মুইজ্জুকে মোদির ঈদ অভিনন্দন

বাংলাদেশ নৌবাহিনী ও কোস্টগাডের টহল জোরদার -ভীতি ও আতঙ্ক কেটেছে দ্বীপবাসীর

বাংলাদেশ নৌবাহিনী ও কোস্টগাডের টহল জোরদার -ভীতি ও আতঙ্ক কেটেছে দ্বীপবাসীর

ভারতে ভয়াবহ ট্রেন দুর্ঘটনা, নিহত বেড়ে ১৫

ভারতে ভয়াবহ ট্রেন দুর্ঘটনা, নিহত বেড়ে ১৫

ইজরায়েলের যুদ্ধকালীন বিশেষ মন্ত্রিসভা বাতিল করলেন নেতানিয়াহু

ইজরায়েলের যুদ্ধকালীন বিশেষ মন্ত্রিসভা বাতিল করলেন নেতানিয়াহু

ঈশ্বরগঞ্জে সড়ক দুর্ঘটনায় দুই কিশোরের মৃত্যু

ঈশ্বরগঞ্জে সড়ক দুর্ঘটনায় দুই কিশোরের মৃত্যু

সিলেট-সুনামগঞ্জে বন্যার অবনতি, উত্তরাঞ্চলে নদ-নদীর পানি বাড়ছেই

সিলেট-সুনামগঞ্জে বন্যার অবনতি, উত্তরাঞ্চলে নদ-নদীর পানি বাড়ছেই

কেউ মাংস দিতে চায় না, তাড়িয়ে দেয়

কেউ মাংস দিতে চায় না, তাড়িয়ে দেয়

পশু কোরবানি দিতে গিয়ে আহত ৯৪

পশু কোরবানি দিতে গিয়ে আহত ৯৪

হরিরামপুরে সাপের কামড়ে দেড় বছরের শিশুর মৃত্যু

হরিরামপুরে সাপের কামড়ে দেড় বছরের শিশুর মৃত্যু

ফৌজদারহাাটে মালবাহী ট্রেন লাইনচ্যুত

ফৌজদারহাাটে মালবাহী ট্রেন লাইনচ্যুত

৭ দিনে পদ্মা সেতুতে ২৫ কোটি ৭৩ লাখ টাকা টোল আদায়

৭ দিনে পদ্মা সেতুতে ২৫ কোটি ৭৩ লাখ টাকা টোল আদায়

যুদ্ধ মন্ত্রিসভা ভেঙে দিয়েছেন নেতানিয়াহু

যুদ্ধ মন্ত্রিসভা ভেঙে দিয়েছেন নেতানিয়াহু

কাদেরের বক্তব্যের জবাব দিতে ‘রুচিতে বাধে’ ফখরুলের

কাদেরের বক্তব্যের জবাব দিতে ‘রুচিতে বাধে’ ফখরুলের

ইউরোয় ‘বড় কিছুর’ লক্ষ্য রোনালদোর

ইউরোয় ‘বড় কিছুর’ লক্ষ্য রোনালদোর

ছোট পুঁজি নিয়েও আত্মবিশ্বাসী ছিলাম: শান্ত

ছোট পুঁজি নিয়েও আত্মবিশ্বাসী ছিলাম: শান্ত

কেন্দ্রীয় কৃষকলীগ নেতা সোহাগ তালুকদার আর নেই

কেন্দ্রীয় কৃষকলীগ নেতা সোহাগ তালুকদার আর নেই

জনগণের মধ্যে ‘ঈদের আনন্দ নেই: মির্জা

জনগণের মধ্যে ‘ঈদের আনন্দ নেই: মির্জা